রবিবার, ১২ মে, ২০১৯

আইপিএস অফিসারের বাড়িতেই মাদক চক্র, উদ্ধার ১০০০ কোটি টাকার মাদক

ঘটনাটি ঘটেছে গ্রেটার নয়ডাতে। কার্যত এক আইপিএস অফিসারের বাড়িই হয়ে উঠেছে মাদক তৈরির কারখানা। সেখান থেকেই দেশের নারকোটিকস কন্ট্রোল ব্যুরোর হাতে এল ১৮১৮ কেজি সিউডোফেড্রিন। সেই সঙ্গে গ্রেফতার করা হয়েছে তিন জনকে, তাদের মধ্যে একজন নাইজেরিয়ান ও একজন দক্ষিণ আফ্রিকার।
আধিকারিকরা দাবি করেছেন এটাই দেশের সবচেয়ে বেশি মাদক দ্রব্যের উদ্ধারের ঘটনা ঘটল। তারা মনে করছেন এই মাদক দ্রব্যের দাম প্রায় ১০০০ কোটি টাকা।
এনসিএস জানিয়েছে, গত বূহস্পতিবার সকালে দিল্লির বিমানবন্দরে এক সন্দেহভাজন ব্যক্তিকে গ্রেফতার করা হয়েছে। সে দিল্লি থেকে দুবাই হয়ে জোহানেসবার্গ যাচ্ছিল। তার কাছ থেকে উদ্ধার হয়েছে ২৪.৭ কেজি সিউডোফেড্রিন। ধূতকে জিজ্ঞাসাবাদ করে জানা যায়, সেই ব্যক্তি ইউপির এক আইপিএস অফিসারের বাড়িতে ভাড়া থাকত। সেখানেই চলত এই মাদক দ্রব্যের চক্র। সেই আইপিএস অফিসারকে ফোন করলে জানা যায় তিনি এই বিষয়ে কিছুই জানতেন না।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only