বুধবার, ২২ মে, ২০১৯

৬৫১ নম্বর পেয়ে নজর কাড়ল ঠিকা শ্রমিকের মেয়ে

শুভায়ুর রহমান, পলাশিপাড়াঃ বাবা নূন্যতম আয়ে ঠিকা শ্রমিকের কাজ করেন। অভাবের পরিবারে মেয়েই ভরসা। স্বপ্ন দেখতেন মেয়েদের নিয়ে। অবশেষে সেই স্বপ্ন অনেকটাই কাছে চলে এলো জীবনের বড় পরীক্ষায় ৬৫১ নম্বর পেয়ে সবার প্রশংসা কুড়িয়েছে নদিয়ার পলাশিপাড়ার হাঁসপুকুরিয়া বিদ্যাপীঠের ছাত্রী মৌমিতা বিশ্বাস। তার বিষয়ভিত্তিক নম্বর বাংলায় ৯৫, ইংরেজিতে ৯৪  অঙ্কে ১০০,পদার্থ বিজ্ঞানে ৮৬, জীবন বিজ্ঞানে ৯৪,ইতিহাসে ৯০ ও ভূগোলে ৯২ পেয়েছে। হাঁসপুকুরিয়া গ্রামের একচিলতে ঘরে বাবা অমর বিশ্বাস ও মা প্রার্থনা বিশ্বাসের দুই মেয়েকে নিয়ে সংসার। অমর বিশ্বাস ভিন রাজ্যে ঠিকা শ্রমিকের কাজ করেন। খুব কষ্টের মধ্যে তিনি তার দুই মেয়েকে লেখাপড়া করাচ্ছেন। বড় মেয়ে মৌমিতা এ বছর হাঁসপুকুরিয়া বিদ্যাপীঠ থেকে মাধ্যমিক পরীক্ষায় বসে। মেয়ের রেজাল্টে খুশি মা প্রার্থনা বিশ্বাস। তার কথায়, খুব কষ্ট করে মেয়েকে শিক্ষিত করার চেষ্টা করছি। বিভিন্ন সমস্যার মধ্যে ওর মাধ্যমিকের রেজাল্ট নিয়ে চিন্তায় ছিলাম। ওর রেজাল্টে খুশি। জানা গেছে, পুলওয়ামায় জঙ্গী হামলায় নিহত জওয়ান সুদীপ বিশ্বাস সম্পর্কে মৌমিতার জ্যাঠতুতো দাদা। মৌমিতা জানান, গৃহ শিক্ষকরা কোনরকম পারিশ্রমিক ছাড়াই পড়িয়েছেন। আমার চিকিৎসক বা সিভিল সার্ভিস অফিসার হওয়ার ইচ্ছে আছে। সেই লক্ষ্যে পড়াশোনা চালিয়ে যাবো।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only