শনিবার, ২২ জুন, ২০১৯

রাতদুপুরে এমপি-র বাড়ির ঝগড়া থামাতে পুলিশ ডাকলেন প্রতিবেশিরা !





আমাকে ছাড়ো এবং আমার ফ্ল্যাট থেকে বেরিয়ে যাও। রাত তখন প্রায় সাড়ে বারোটা। ব্রিটেনের প্রধানমন্ত্রী পদপ্রার্থী দৌড়ে এগিয়ে থাকা এমপি বরিস জনসনের বাড়ি থেকে এমনই সব কথা প্রতিবেশীদের কানে ভেসে আসছিল।পরক্ষণেই উত্তেজনা বাড়তে থাকে।  শুরু হয় ভাঙচূর। আতঙ্কিত হয়ে পড়েছিলেন প্রতিবেশীরা। কারণ, যতই হোক এ তো যেমন-তেমন লোক নন। বর্তমানে ব্রিটেনের ভাবি প্রধানমন্ত্রী হওয়ার প্রার্থীদের দৌড়ে তিনি অন্যতম।তাই কোনও অঘটন ঘটে যাওয়ার আগেই বাধ্য হয়েই এমপির বাড়ির ঝগড়া থামাতে পুলিশ ডাকলেন প্রতিবেশিরা।
পুলিশ জানিয়েছে, বরিস-এর ক্যামবারওয়েল এসই৫ এলাকার ওই ফ্ল্যাটে বরিস ও তার বান্ধবীর মধ্যে তুমুল অশান্তি শুরু হয়। এই অশান্তিতে প্রতিবেশি এক মহিলা নিরাপত্তার অভাববোধ করায় পুলিশকে ফোন করে সাহায্য চান। তাই তারা সেখান গিয়ে ছিলেন।
উল্লেখ্য, টেরেসা মে-র উত্তরসূরি হিসাবে গত বৃহস্পতিবার চতুর্থ ও পঞ্চম দফার ভোটে একে একে বাদ পড়েছেন শীর্ষ চারে থাকা সাজিদ জাভিদ ও মাইকেল গোভ। এখন রয়ে গিয়েছেন, দুই প্রাক্তণ ও বর্তমান বিদেশমন্ত্রী বরিস জনসন ও জেরেমি হান্ট।আগামী মাসেই রয়েছে ভোট। সমালোচকরা বলছেন,বরিসের এমন আচরণ নেতাদের চারিত্রিক বৈশিষ্ট্য নিয়ে প্রশ্ন তুলতে পারে।তাই তাঁর প্রধানমন্ত্রী হওয়ার সম্ভবণাতে জল ঢেলে দিতে পারে।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only