সোমবার, ১০ জুন, ২০১৯

কাঠুয়ায় নাবালিকার গণধর্ষণ ও খুনের মামলা, দোষী সাব্যস্ত ছ’জন

সোমবার পাঠানকোটের বিশেষ আদালত কাঠুয়ায় নাবালিকাকে গণধর্ষণ ও খুনের মামলায় ছ’জনকে দোষী সাব্যস্ত করল প্রাক্তন সরকারি অফিসার সঞ্জি রাম-সহ  মোট সাত জন অভিযুক্ত ছিলেন। কিন্তু তথ্যপ্রমাণের অভাবে এক জনকে আদালত বেকসুর খালাস করেছে। গত ৩ জুন জেলা-দায়রা আদালতে এই মামলার শুনানি শেষ হয়। এই মামলার শুনানি সম্পূর্ণভাবে গোপন রাখা হয়। আদালত দোষীদের সাজাও ঘোষণা করতে চলেছে। দোষীদের যাবজ্জীবন এবং সর্বাধিক মৃত্যুদণ্ডের সাজা হতে পারে
২০১৮ সালের ১০ জানুয়ারির ঘটনা। যাযাবর সম্প্রদায়ের এক নাবালিকাকে  অপহরণ করা হয়। জম্মু-কাশ্মীরের কাঠুয়ায় একটি মন্দিরে আটকে রাখা হয় সেই নাবালিকাকে। মাদক খাইয়ে গণধর্ষণ করা হয়  সেই নাবালিকার। শ্বাসরোধ করে, মাথা থেঁতলে খুন করা হয়। দশ দিন পরে অর্থাৎ ১৭ জানুয়ারি জঙ্গল থেকে ওই নাবালিকার দেহ উদ্ধার করে পুলিশ। তারপর থেকেই চলে তদন্ত, তল্লাসি ও জেরা। অবশেষে ২০১৯ সালের ১০ জুন পাঠানকোটের বিশেষ আদালত কাঠুয়ায় নাবালিকাকে গণধর্ষণ ও খুনের মামলায় ছ’জনকে দোষী সাব্যস্ত করল

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only