রবিবার, ১৬ জুন, ২০১৯

বৃষ্টির আশায় কাদা করে ক্ষীর রান্না পলাশিপাড়ার গ্রামে

শুভায়ুর রহমান, পলাশিপাড়া:- কড়াইয়ে চাল ফুটছে। আর মজনু সেখ বৃষ্টি নামার জন্য হা..হুতাশ করছেন। পাশে পুকুড়ের পাড়ে  একটি বাঁশের মাচায় টিভিতে চলছে ভারত -পাকিস্থানের মধ্যে ক্রিকেট যুদ্ধ। কেউ কেউ খোঁজ নিচ্ছেন আর কতক্ষণ পর ক্ষীর রান্না শেষ হবে। বিকাল তখন গড়িয়ে সূর্যের 'রক্তচক্ষু' অনেকটাই স্তিমিত। উদ্যোক্তাদের মধ্যে মজনু সেখ জানালেন,  মাঠের পাটের ক্ষতি হচ্ছে। অসহ্য গরম আর রোদ। কাজ করার উপায় নেই। এই মুহুর্তে বৃষ্টি না হলে মানুষের দুর্দশার শেষ থাকবে না। আজ রবিবার দুপুরে পাড়ার ছেলেরা শুকনো জায়গায় জল ঢেলে কাদা করেছি। আর এখন ক্ষীর রান্না হচ্ছে বিলি করার জন্য।"

আকাশে বৃষ্টি বা মেঘের দেখা নেই। কোথাও তাপমাত্রা চল্লিশ ডিগ্রি ছুঁইছুঁই কোথাও বা চল্লিশ পেরিয়েছে। আবহাওয়ার এই খামখেয়ালিতে মানুষের হা..পিত্যেশের অন্ত নেই। তাই বৃষ্টির আশায় নদিয়ার পলাশিপাড়ার বারুইপাড়া গ্রামের উত্তর পাড়ার ছেলেরা ক্ষীর বিলির উদ্যোগ গ্রহণ করে বলে জানা গেছে। তাদের আশা ক্ষীণ বিলি হলে হলে বৃষ্টি হবে। মকদিল সেখের কথায়, ছেলেরা বলল যে ক্ষীর বিলি করতে হবে। তাই পাড়ার সকলে চাঁদা তুলে ক্ষীর রান্না করেছি।' কাদা করে ক্ষীর বিলি করলে বৃষ্টি হবে এই বিশ্বাস জন্ম নিয়েছে ঐ যুবকদের মধ্যে। কড়াইয়ে ক্ষীর রান্না করতে করতে মজনু সেখ বলতে থাকলেন' আল্লাহ মেঘ দাও, বৃষ্টি দাও। সুর মেলায় অন্যরাও।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only