বুধবার, ৩১ জুলাই, ২০১৯

সবচেয়ে দামি চা বিক্রি হল অসমে, কী তার বিশেষত্ব জানুন

চায়ের ইতিহাসে এযাবৎকালের সর্বোচ্চ মূল্য ৫০ হাজার টাকাতে বিক্রি হয়েছে এক কেজি চা। গুয়াহাটির চায়ের নিলাম বাজারে মঙ্গলবার মনোহারী সোনালি স্পেশালিটি চা নামের বিশেষ এই চা বিক্রি হয়।চা–গাছের কুঁড়ি দিয়ে উৎপাদিত হয় মনোহারী চা। মে থেকে জুন মাসে ভোরবেলা কুঁড়ি তোলা হয়। অপ্রস্ফুটিত কুঁড়িগুলোকে বিশেষ পদ্ধতিতে স্প্রিং ব্লেন্ডিংয়ের মাধ্যমে এই চা তৈরি করা হয়। এই চা উৎপাদনে প্রচুর সময় ও শ্রম লাগে বলে সচরাচর তা উৎপাদন করা হয় না। মনোহারী চা–বাগানে এ বছর মনোহারী চা উৎপাদিত হয়েছে মাত্র পাঁচ কেজি।
গুয়াহাটির চা নিলাম কেন্দ্রের সম্পাদক দীনেশ বিহানি বলেছেন, ‘এ নিলাম বাজারে এই প্রথম চায়ের এত দাম উঠেছে। চা বিক্রির ইতিহাসে এটাই সর্বোচ্চ মূল্য।’ সৌরভ টি ট্রেডার্সের মাঞ্জিলাল মহেশ্বরী গতকাল এই নিলাম থেকে দুই কেজি চা কেনেন। মনোহারী চা অবশ্য ‘অর্থোডক্স’ চা বলে পরিচিত।
গত বছর এই চা প্রতিকেজি বিক্রি হয়েছিল ৩৯ হাজার টাকাতে। তবে গতবারের এই রেকর্ড ভেঙে দিয়েছিল অরুণাচল প্রদেশের ‘গোল্ডেন নিডল চা’। এটি উৎপাদিত হয়েছিল ডনি পোলো চা–বাগানে। সেই চা প্রতি কেজি বিক্রি হয়েছিল ৪০ হাজার টাকাতে। আর এবার গুয়াহাটিতে আসামের মনোহারী সোনালি স্পেশালিটি চা প্রতি কেজি বিক্রি হলো ৫০ হাজার টাকাতে।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only