বৃহস্পতিবার, ২৫ জুলাই, ২০১৯

২০২২ সালে মহাকাশে মানুষ পাঠাবে পাকিস্তান!


এত দিন আমেরিকা,রাশিয়া,চিন মত উন্নয়শীল দেশগুলির মহাকাশে অভিযাত্রী পাঠিয়ে এসছে। সোভিয়েত ইউনিয়ন নেতৃত্বাধীন মিশনের অংশ হিসেবে প্রতিবেশী ভারত ১৯৮৪ সালে প্রথম মহাকাশে নভোচারী পাঠায়।কিন্তু মহাকাশ গবেষণা নিয়ে পাকিস্তান অনেকটাই পিছিয়ে। সেদিক থেকে ২০২২ সাল নাগাদ মহাকাশে মানুষ পাঠানোর ঘোষণা করল পাকিস্তান।

পাকিস্তানের বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি মন্ত্রী চৌধুরী ফায়োদ হুসেইন বৃহস্পতিবার এমন ঘোষণা করেন, আমাদের দেশের ইতিহাসে সবচেয়ে বড় অভিযান করতে চলেছি। আমরা ২০২২ নাগাদ সেখানে মানুষ পাঠাব। আগামী ফেব্রুয়ারি থেকে নির্বাচকমন্ডলী প্রার্থী বাছাই শুরু করবেন। প্রথমে পঞ্চাশ জনের একটি তালিকা তৈরি করা হবে। পরে সেখান থেকে ২৫, তারপর সেখান থেকে ১০ জনে কমিয়ে আনা হবে। পাকিস্তানের বিমান বাহিনী প্রার্থী বাছাই প্রক্রিয়ার তত্বাবোধন করবে। ১৯৬১ সালে পাকিস্তান জাতীয় মহাকাশ সংস্থা স্পেস অ্যান্ড আপার অ্যাটমসফেয়ার রিসার্চ কমিশন গঠন করেছিল।


এরজন্য পাকিস্তানের সঙ্গে চিনের একটি চুক্তি হয়েছে। আসলে পাকিস্তানে কোনও উৎক্ষেপণ কেন্দ্র নেই। সেক্ষেত্রে তারা চিনের উৎক্ষেপ কেন্দ্র ব্যবহার করবে। সোমবার নয়াদিল্লি থেকে ১৩০ কোটি ভারতীয় স্বপ্ন নিয়ে উড়ান দেয় চন্দ্রযান-২। চাঁদের অন্ধকার অংশের রহস্যে অনুসন্ধান চালিয়ে সেখানে বিষয়গুলিকে অনুধাবনের সুযোগ করে দেবে চন্দ্রযান-২। সম্প্রতি চাঁদে প্রথম মানুষ পাঠানোর ৫০ বছর পূর্তির উদযাপন করছে আমেরিকার মহাকাশ সংস্থা নাসা।



একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only