বুধবার, ২৮ আগস্ট, ২০১৯

বারাণসীতে হামলার ছক কষছে লস্কর-ই-তৈবা, দাবি গোয়েন্দাদের

জঙ্গিদের নিশানায় এবার নরেন্দ্র মোদির লোকসভা কেন্দ্র বারাণসী। গোয়েন্দাদের রিপোর্ট অনুযায়ী– জঙ্গি সংগঠন লস্কর-ই-তৈবা বড়সড় হামলা চালাতে পারে সেখানে। 

কখনও মহারাষ্ট্র– কখনও আবার রাজস্থান। জঙ্গিরা টার্গেট করতে পারে এই দুটি রাজ্যকে। বেশ কয়েকদিন ধরেই গোয়েন্দারা এমনই সতর্কবার্তা দিচ্ছেন। এবার ফের একবার সতর্কবার্তা গোয়েন্দাদের তরফে। বারাণসীতে বড়সড় নাশকতা চালাতে পারে তারা।  গোয়েন্দা সূত্রের খবর– হামলার উদ্দেশ্যে কয়েকমাস থেকেই মন্দির শহরে ঘোরাঘুরি করছে তারা। কীভাবে সেখানে নাশকতা চালানো যায়– তার জন্য উমার মাদানি নামে ওই সন্ত্রাসবাদী– নেপালের এক সন্ত্রাসবাদীর সঙ্গে মে মাসে বারাণসী শহরে রেইকি করে। তাদের আরও উদ্দেশ্য ছিল লস্কর-ই-তৈবার নেটওয়ার্ককে ওই এলাকায় কীভাবে শক্তিশালী করা যায়। পবিত্র শহরে তাদের আলোচনার আরও বিষয়বস্তু ছিল ‘মোডাস অপারেন্ডি’ নিয়েও। যাতে বড় হামলা চালানো যায়। 

নিজেদের উদ্দেশ্য পূরণের জন্য– বারাণসীতে ৭ মে থেকে ১১ মে পর্যন্ত একটি গেস্ট হাউসে ছিল তারা। সেখানে থাকাকালীন উমার মাদানি এনিয়ে আলোচনা করেন বহু মানুষের সঙ্গেই। উমার মাদানির কাজ কী? লস্কর জঙ্গিদের নিয়োগ করাই মূলত তার কাজ। বিগত কয়েক মাসে তরুণ-তুর্কিদের মগজধোলাই করেছে বলেও দাবি গোয়েন্দাদের। একে তো নরেন্দ্র মোদির লোকসভা কেন্দ্র– অন্যদিকে পবিত্র মন্দির শহর। তাই এই সতর্কবার্তা পেতেই নড়েচড়ে বসেছে প্রশাসন। জোরদার করা হয়েছে নিরাপত্তা ব্যবস্থা। 

উল্লেখ্য– এর আগে জুন মাসে গোয়েন্দারা কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রককে সতর্ক করেছিল জঙ্গি হামলা নিয়ে। সে বার অবশ্য জঙ্গিদের নিশানায় ছিল উত্তরপ্রদেশের ফৈজাবাদ ও গোরক্ষপুর। গোয়েন্দা রিপোর্ট অনুযায়ী– দেশের একাধিক শহরে নাশকতার ছক কষছে লস্কর-ই-তৈবা।    

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only