মঙ্গলবার, ২০ আগস্ট, ২০১৯

চালক ও আরোহীদের গান শোনায় এই রাস্তা!



গান মানুষের মন খারাপ দূর করে দেয়, ভারাক্রান্ত মনে ফুরফুরে আনন্দ এনে দেয়। এমনও দেখা গিয়েছে, মৃতপ্রায় মানুষের কাছে সঞ্জিবনী সুধা হয়ে উঠেছে গান। ইদানিং দুরারোগ্য রোগ নির্মূলে মিউজিক থেরাপি ব্যবহার করা হচ্ছে। এমন যন্ত্রণা কমাতে অপারেশনের সময়ও চিকিৎসকরা রোগীদের পছন্দসই গান বাজাচ্ছেন। আবার এটাও প্রমাণিত যে, দীর্ঘক্ষণ একঘেঁয়ে কাজে ক্লান্তি দূর করতে গানের বিকল্প নেই। তাই, ভাবনাকে মাথায় রেখে 'মিউজিক্যাল রোড' নামে রাস্তা নির্মাণ করেছে জাপান।
দেখা গিয়েছে গাড়ি নিয়ে লং ড্রাইভে বেরোলে দীর্ঘক্ষণ স্টিয়ারিং হাতে একঘেঁয়েমি এসে যায় চালকের। আবার খানা-খন্দ, বাম্পারের ঝাঁকুনি খেতে খেতে আরোহীদের ক্লান্তি আসে। তাই বিরক্তি দূর করতে সব গাড়িতে আজকাল মিউজিম সিস্টেম থাকে। কিন্তু যদি এমনটা হয় যে, গান শুনিয়ে সড়কই স্বাগত জানাবে পথিক ও পর্যটকদের। অবিশ্বাস্য লাগলেও জাপানে এটাই বাস্তব। এশিয়ার দ্রুত উন্নয়নশীল দেশটির সরকার ইতিমধ্যেই বিভিন্ন অঞ্চলে ৩০টির বেশি গান শোনানো রাস্তা নির্মাণ করেছে। এই সড়কের নাম দেওয়া হয়েছে 'মিউজিক্যাল রোড'।
এই অভিনব ভাবনা-র পথিকৃত হলেন প্রখ্যাত জাপানি ইঞ্জিনিয়ার তথা হোক্কাইডো ইন্ডাস্ট্রিয়াল রিসার্চ ইন্সটিটিউটের প্রধান অধিকর্তা শিজুয়ো শিনোদো। তাঁর পরিকল্পনাকেই বাস্তবায়িত করছে জাপানের পরিবহণ মন্ত্রক। মিউজিক্যাল রোডের কিছুটা অন্তর দেখা যায় সরু সরু কাটাদাগের মতো। এগুলি আসলে সাউন্ড সিস্টেম চ্যানেল। এই চ্যানেলের ভিতর রয়েছে বিশেষ ধরনের প্রযুক্তি। চ্যানেলের ওপর দিয়ে গাড়ি গেলে সেখানে মৃদু কম্পন সৃষ্টি হয়। সেই কম্পন থেকেই ভেসে আসে সূরের মূর্ছনা। তবে সব জায়গায় একই গান বাজনা। বিভিন্ন জায়গার চ্যানেলে বিভিন্ন ধরনের গান শোনা যায়।
বিশ্বের আরও কয়েকটি জায়গায় এই ধরণের রাস্তা নির্মাণ করা হয়েছে। নিউ মেক্সিকো, ক্যালিফোর্নিয়া, দক্ষিণ কোরিয়া, ডেনমার্কেও রয়েছে এই ধরণের রাস্তা।


একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only