বুধবার, ১৮ সেপ্টেম্বর, ২০১৯

দেশে নিষিদ্ধ হতে চলেছে ই-সিগারেট

ই-সিগারেট নিষিদ্ধ হতে চলেছে দেশে। বুধবার কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারামন নয়া দিল্লিতে এ কথা জানান।উৎপাদন, প্রস্তুতকরণ, আমদানি, রফতানি, পরিবহন, বিক্রয়, বিতরণ, মজুতকরণ ও বিজ্ঞাপন– ইসিগারেট সম্পর্কিত সমস্ত কিছুই নিষিদ্ধ করা হবে। ক্যাবিনেট মিটিংয়ের পর অর্থমন্ত্রী সাংবাদিক সম্মেলনে এক বলেন। এ্ জন্য সরকার শীঘ্রই একটি অর্ডিন্যান্স আনতে চলেছে বলে জানান তিনি। 
ই সিগারেট দেশের নাগরিকদের, বিশেষ করে যুবাদের উপর মারাত্মক প্রভাব ফেলছে। সিগারেটের ফলে ক্যানসার সহ অনেক রোগই বেশিমাত্রায় হচ্ছে।অনেকে ভেবে থাকেন, এই ধরনের সিগারেটের ধোঁয়া গ্রহণ করার ফলে স্বাস্থ্যের ক্ষতি কম হয়।অনেকে ধূমপান ছাড়ার জন্যও এই ইসিগারেট ব্যবহার করে থাকেন। কিন্ত গবেষণায় দেখা গেছে, ইসিগারেট ধূমপান তো ছাড়তে কোনও সাহায্য করেই না, উলটে স্বাস্থ্যের ক্ষতির পরিমান আরও বাড়িয়ে দেয়।

খসড়া বিলে এই ই সিগারেটের আইন ভঙ্গকারীদের এক বছরের জেল অথবা এক লাখ টাকা পর্যন্ত জরিমানা হতে পারে অথবা দুটোই হতে পারে প্রথমবার অপরাধের জন্য। পুনরাবূত্তির জন্য ৩ বছরের জেল বা ৫ লাখ টাকা জরিমানা হতে পারে। ই সিগারেটের মজুত করে রাকলে ৬ মাস পর্যন্ত জেল বা ৫০,০০০ টাকা পর্যন্ত জরিমানা হতে পারে।
কেন্দ্রীয় পরিবেশ মন্ত্রী প্রকাশ জাভড়েকর জানান, এই আইনের আওতায় ই হুকাও অসবে ও নিষিদ্ধ হবে।প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, ভারতে কমপক্ষে ১২ লক্ষ মানুষ প্রতি বছর তামাকঘটিত রোগে মারা যায়।       



একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only