বুধবার, ২৫ সেপ্টেম্বর, ২০১৯

এনআরসি নিয়ে কেন্দ্র সরকারকে তোপ দাগলেন মুহাম্মদ সেলিম

এনআরসি নিয়ে কেন্দ্র সরকারকে তোপ দাগলেন সিপিএম নেতা তথা প্রাক্তন সাংসদ মুহাম্মদ সেলিম। বীরভূমের সিউড়িতে বুধবার দলীয় কর্মসূচিতে অংশগ্রহণ করেন তিনি। সেলিম সাহেব বলেন," যখন লোকসভা ভোট হয়েছিল তখন কি  বিজেপি সরকার এনআরসির কথা বলেছিল? তখন কি বলেছিল তোমরা ভোটার লিস্টের নাম সংশোধন করো, মা বাপের নাম সঠিক আছে কি না ঠিক করো। তখন বলেছিল মোদিকে ভোট দাও বাকি সব ঠিক হয়ে যাবে। মোদীজি আয়েঙ্গে, আচ্ছে দিন লায়েঙ্গে। আর এখন যে দিনমজুর মাঠে কাজ করছে শ্রমিক ব্যবসায়ী থেকে কলেজ পড়ুয়া সকলকে পোস্ট অফিস ব্যাঙ্ককে গিয়ে লাইন দিতে হচ্ছে। তবে মোদি এসে কি করলো। সব ঠিক করব বলে বেঠিক করে দিল। ভোটার লিস্টের নাম ঠিক আছে কি না কার দেখা দরকার। নির্বাচন কমিশন নেই। নির্বাচন কমিশন হাজার হাজার কোটি টাকা খরচ করে হেলিকপ্টারে করে ভোট করছে, ভোটের প্রচার এর জন্য নরেন্দ্র মোদি বিজেপি প্লেন, ইমেইল বিজ্ঞাপন, হোর্ডিং ব্যবহার করেছে। আর আপনার-আমার ভোটার লিস্টের নাম সংশোধনে তাড়া দিতে পারে না। যখন বামফ্রন্ট সরকার ছিল অপারেশন বর্গা হত, তখন কোথাও কাউকে লাইন দিতে হত না ।মাঠে গিয়ে জমি মাপ করে সেখানেই বর্গা নথিভুক্ত করে দেওয়া হত। আর ভোটার লিস্টের নাম ঠিক করার জন্য স্মার্টফোন জোগাড় করে কোনো দালালকে ধরে সেটা করতে হবে। আর এই পুজো উৎসবের মরসুমে যেখানে মানুষজনের বাজারে জামা কাপড় দোকানে গিয়ে লাইন দেওয়ার কথা ছিল সেটা না করে বিভিন্ন জায়গাতে নাম ঠিক করার জন্য লাইন দিতে হচ্ছে। আর ওদিকে দিলীপ ঘোষ বলছে, দু'কোটি বাংলার মানুষকে ও পার করে দেব। আমাদের আমলে কোনো বাপের বেটার সাহস ছিল না কোনো মানুষকে বাংলা ছাড়া করবো বলার"। 

পাশাপাশি অন্যদিকে তিনি কেন্দ্রীয় মন্ত্রী বাবুল সুপ্রিয়কে কটাক্ষ করে বলেন,
"বাবুল সুপ্রিয়,  দিলীপ ঘোষদের চার চারটে জন্ম লেগে যাবে যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয়ে প্রবেশের যোগ্যতা অর্জন করতে। সেদিন বাবুল সুপ্রিয় যাদবপুরে গিয়ে আন্দোলনের নামে ছাত্রছাত্রীদের বদনাম করতে গেছিল"-   যাদবপুর কাণ্ড নিয়ে তিনি বিজেপি নেতা বাবুল সুপ্রিয় সম্পর্কে বলেন," যাদবপুরে গিয়ে বাবুল সুপ্রিয় মেয়েদের উদ্দেশে কটুক্তি করেছে।" 

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only