বৃহস্পতিবার, ২৬ সেপ্টেম্বর, ২০১৯

রোহিঙ্গাদের জন্য আশ্রয় শিবির তৈরি করুন, শেখ হাসিনাকে বললেন তুরস্কের বিদেশমন্ত্রী

বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রীকে অসহায়– শরণার্থী রোহিঙ্গাদের জন্য আশ্রয় শিবির তৈরি করে দেওয়ার অনুরোধ জানালেন তুরস্কের বিদেশমন্ত্রী মেভলুট চবুসউলু। রাষ্ট্র সংঘ আয়োজিত ৭৪তম সাধারণ অধিবেশনে বত্তৃ«তায় তিনি রোহিঙ্গা সংকট প্রসঙ্গে এই মন্তব্য করেন। তিনি বলেন– সমগ্র বিশ্বে রোহিঙ্গা সংকট বড় ধরনের ও গুরুতর ট্রাজেডি। মায়ানমার সরকার অন্যায়ভাবে রোহিঙ্গা মুসলিমদের নিপীড়ন ও বিতাড়ন করার পর বাংলাদেশ তাঁদের আশ্রয় দিয়েছে। বাংলাদেশের এই ভূমিকাকে কুর্নিশ জানাচ্ছে তুরস্ক। শেখ হাসিনাকে উদ্দেশ্য করে তিনি বলেন– ‘বিশ্বের সেরা আশ্রয় শিবির তৈরি করা হয়েছে তুরস্কে। বাংলাদেশ সরকারকে অনুরোধ করছি– তুরস্কের ধাঁচে জমি বণ্টন করে রোহিঙ্গাদের জন্য আশ্রয় শিবির তৈরি করে দিন। আমরা মনে করি– বাংলাদেশ সরকার যেন দ্রুত পদক্ষেপ নিতে পারে– সেই লক্ষ্যে অন্য দেশগুলির সহায়তা করা উচিত বাংলাদেশকে।’ তিনি আরও বলেছেন– যখন থেকে রোহিঙ্গাদের ওপর মায়ানমার সরকার নির্যাতন শুরু করেছে– তখন থেকে তুরস্ক এই প্রেক্ষিতে আন্তর্জাতিক দৃষ্টি আকর্ষণ করতে উদ্যোগ নিয়েছে। মায়ানমার ও বাংলাদেশে অসহায় রোহিঙ্গাদের প্রতি যথাসাধ্য সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিয়েছে তুরস্ক। মায়ানমারে রোহিঙ্গাদের মর্যাদার সঙ্গে ও নিরাপদে ফিরিয়ে দেওয়ার জন্যও তুরস্ক পদক্ষেপ নিতে আগ্রহী।
মায়ানমারের সংখ্যালঘু মুসলিমদের ওপর সেনাবাহিনী দিয়ে চরমতম দমনপীড়ন শুরু করে আং সান সু কি পরিচালিত সরকার। ২০১৭ সালের আগস্ট মাসে অত্যাচার সহ্য করতে না পেরে প্রাণ বাঁচাতে দেশ ছেড়ে বাংলাদেশে পালিয়ে আসেন প্রায় সাড়ে সাত লক্ষ রোহিঙ্গা। শরণার্থী রোহিঙ্গাদের অধিকাংশ মহিলা ও শিশু। রাষ্টÉসংঘ দ্ব্যর্থহীন ভাষায় মায়ানমার সরকারের সমালোচনা করে বলেছিল– রোহিঙ্গা মানুষেরা বিশ্বের সর্বাধিক নির্যাতিত জনগোষ্ঠী! ২০১২ সালেও সাম্প্রদায়িক দাঙ্গায় বহু রোহিঙ্গা মানুষের মৃতু্য হয়েছিল।
রোহিঙ্গাদের ওপর নির্যাতনের প্রসঙ্গ তুলে মায়ানমার সরকারের কঠোর সমালোচনা করেছেন মালয়েশিয়ার প্রধানমন্ত্রী ড. মাহাথির মুহাম্মদ। তিনি বলেন– মায়ানমারে যা ঘটেছে– তা স্পষ্ট গণহত্যা। যেহেতু মায়ানমার সরকার রোহিঙ্গা সংকট সমাধানে কোনও গুরুত্ব দেয়নি– তাই রাষ্টÉসংঘের উচিত সমস্যা সমাধানে পদক্ষেপ নেওয়া।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only