সোমবার, ১৪ অক্টোবর, ২০১৯

৭০ দিন পরে কাশ্মীরে ফিরল ইন্টারনেটহীন বিএসএনএল পোস্ট পেইড

টানা ৭০ দিন অবরুদ্ধ কাশ্মীর। কথা মতো সোমবার উপত্যকায় চালু হল বিএসএনএলের পোস্ট পেইড মোবাইল পরিষেবা। যদিই এই পরিষেবায় দেওয়া হয়নি ইন্টারনেট সংযোগ। সরকার গত সপ্তাহে ঘোষণা করেছিল যে উপত্যকায় ফিরিয়ে দেওয়া হবে মোবাইল সংযোগ। সোমবার দুপুর থেকেই শুরু হল সেই কাজ ।
সুত্রের খবর এই মোবাইল পরিষেবা চালুর বিষয়টি নির্ভর করছে সেখানকার নিরাপত্তার ওপর। সেদিকে সতর্ক দৃষ্টি রাখছে প্রশাসন। অর্থাৎ বেগতিক দেখলেই ফের বন্ধ হয়ে যেতে পারে মোবাইল। প্রশাসন দাবি করছে গত ১৬ আগস্ট থেকেই কাশ্মীরকে ছন্দে ফেরানো চেষ্টা চলছে। ১৭ আগস্ট কিছু ল্যান্ডলাইন ফোন চালু হয়েছিল। ৪ সেপ্টেম্বর কাশ্মীরে প্রায় ৫০ হাজার ল্যান্ডফোন সংযোগ ফিরিয়ে দেওয়া হয়েছিল বলে জানানো হয়েছিল। জম্মু এবং লাদাখে আগে থাকেই চালু হয়েছে মোবাইল পরিষেবা। জম্মু-কাশ্মীর সরকারের মুখপাত্র রোহিত কানসাল গত শনিবার জানিয়েছিলেন– ‘জম্মু-কাশ্মীরের অবস্থা পুনর্বিবেচনা করে সেখানে মোবাইল ফোন ফের চালু করার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। মুলত পোস্টপেইড ফোনই চালু করা হবে। সোমবার দুপুর ১২ টা থেকে এই ফোন চালু করা হবে বলে জানানো হয়েছিল। ইন্টারনেট সংযোগের কোনও কথা বলা হয়নি। বরং বলা হয়েছিল ২০ লক্ষ প্রিপেইড ফোনের ইন্টারনেট পরিষেবা এখনও বন্ধ রাখা হবে।
প্রশাসন প্রায়ই দাবি করছে পরিস্থিতি স্বাভাবিক হচ্ছে। আবার প্রশাসনের তরফে কাগজে বিজ্ঞাপন দিয়ে কাশ্মীরীদের কাছে পরিস্থিতি স্বাভাবিক করার আবেদন জানানো হয়েছে। বিজ্ঞাপনের বয়ানে সেখানকার মানুষদের কাছে আবেদন জানানো হয়– তারা যেন অবরোধ তুলে নেন। তাঁরা যেন পরিস্থিতি স্বাভাবিক অবস্থায় ফিরিয়ে আনেন। রবিবার প্রচারে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিও কাশ্মীরের পরিস্থিতি স্বাভাবিক করতে ৪ মাস সময় চান। ফলে কাশ্মীর স্বাভাবিক হচ্ছে বলে প্রশাসন যে দাবি করছে তা প্রধানন্ত্রীর বক্তব্যকে সমর্থন করছে না।


একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only