বৃহস্পতিবার, ৩ অক্টোবর, ২০১৯

বাংলাদেশি দুই তান্ত্রিক গ্রেফতার


ইনামুল হক, বসিরহাটঃ বাংলাদেশের দুই তান্ত্রিক গেপ্তার হল স্বরূপনগর থানার খদ্দর সিং গ্রাম থেকে। এদের বাড়ি বাংলাদেশের কুষ্টিয়া জেলার কাঠ মারি ও মিরপুরে । এদের নাম ইসমাইল হোসেন ও এমডি বকুল খন্দকার। এরা দীর্ঘদিন ধরে রাজ্যের বিভিন্ন প্রান্তে বিভিন্ন জেলায় ঘুরে দুর্বল মানুষকে বেছে বেছে তাদের সঙ্গে রীতিমতো সম্পর্ক তৈরি করে বাড়িতে  গিয়ে ঝাড়ফুঁক করে। পাশাপাশি চাকরির নামে কখনো তাবিজ মাদুলি আবার কখনো চালের মধ্যে বাড়ির অলংকার সোনার চেইন কানের দুল হাতের আংটি চালের মধ্যে লুকিয়ে রেখে চাল পড়ার নাম করে তাদেরকে বুজরুকি কথাবার্তা বলে চোখের  নিমিষে সোনার গহনা আত্মসাৎ করে চম্পট দিত। 

দুই তান্ত্রিক  বুধবার সন্ধ্যেবেলায় স্বরুপনগর সীমান্তবর্তী গ্রাম বারঘরিয়া ও খদ্দর সিংয়ের বাসিন্দা বাপি সরদার ও শফিকুল মোল্লার বাড়িতে গিয়ে ঝাড়ফুঁকের নাম করে সোনার গহনা টাকা হাতানোর চেষ্টা করলে বাংলাদেশের এই দুই তান্ত্রিক হাতেনাতে ধরা পড়ে যায়। 

ঘরের মধ্য গ্রামবাসীরা আটকে রেখে তাদের জিজ্ঞাসাবাদ করতে  সব সত্যি কথা বলে।  তিন থেকে চার বছর বাংলাদেশ থেকে চোরা পথে ভারতে ঢুকে রাজ্য ছাড়িয়ে ভিন রাজ্যে মানুষের দুর্বলতার সুযোগ নিয়ে এই কাজ করে চলেছে। গ্রামবাসীরা তান্ত্রিকদের এইসব কথা শুনে স্বরুপনগর থানায়  পুলিশের হাতে তুলে দেয়। পুলিশি জেরায় স্বীকার করেছে তারা দীর্ঘদিন ধরে লোক চক্ষুর আড়ালে এই কাজ করেছে। পাশাপাশি এখানে তাদের আত্মীয় অসুস্থতার কারণে এখানে এসেছেন।  এমনটাই বক্তব্য তান্ত্রিকদের চলেছে কি করে এদেশে এইভাবে রয়েছে সেটাও তদন্ত  দেখছে পুলিশ।ধৃত ২ তান্ত্রিককে বৃহস্পতিবার বসিরহাট মহকুমা আদালতে তোলা হয়।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only