সোমবার, ২৮ অক্টোবর, ২০১৯

অর্থ সংকট, এখনও পড়ুয়াদের পাঠ্যপুস্তক দিতে পারেনি যোগী সরকার


আর্থিক মন্দার কোপে উত্তরপ্রদেশের যোগী আদিত্যনাথ সরকার। অভিযোগ, যোগীর রাজ্যে আর্থিক পরিস্থিতি ভয়ংকর আকার নিতে চলেছে। আগেই ২৫ হাজার হোমগার্ডকে ছাঁটাই করার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে সরকারের তরফে। আর এবার যে তথ্য সামনে এসেছে তা রীতিমতো উদ্বেগজনক। ‘ন্যাশনাল হেরাল্ড’ নামে একটি পোর্টাল তাদের প্রতিবেদনে উল্লেখ করেছে, উত্তরপ্রদেশে আর্থিক অবস্থা ভেঙে পড়েছে। আগেই হোমগার্ডদের ছাঁটাই করার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়েছে। আর এখন রাজ্যের একাধিক সেক্টরের কর্মীরা বেতন পাচ্ছেন না। আরও গুরুতর অভিযোগ, রাজ্যের ষষ্ঠ থেকে অষ্টম শ্রেণির পড়ুয়াদের পাঠ্যপুস্তকই এখনও দিয়ে উঠতে পারেনি যোগী সরকার। 
উত্তরপ্রদেশে রাজ্য সরকারের কোষাগারের আর্থিক হাল নিয়ে পোর্টালটির প্রতিবেদনে আরও বলা হয়েছে, হোমগার্ডদের পর যোগী সরকার এবার কর্মচারী কল্যাণ সমিতিকে বন্ধ করে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। কারণ, গত ১১ মাস ধরে তারা কোনও বেতন পায়নি। চলতি সপ্তাহের শুরুতে মন্ত্রিসভার এক বৈঠকে যোগী সরকার তিন সদস্যের একটি কমিটি তৈরি করে। তারাই সুপারশি করবে ওই কর্মীদের স্বেচ্ছাবসর দেওয়া হবে নাকি– অন্য দফতরে বদলি করে দেওয়া হবে। রাজ্যের প্যারামেডিক কর্মী ও নন-মেডিক্যাল অ্যাসিস্ট্যান্টরা গত তিন মাস বেতন পাচ্ছেন না। রাজ্যের স্বস্থ্য দফতর জানিয়েছে– বেতন দেওয়ার মতো টাকা তাদের হাতে নেই। শিক্ষা ব্যবস্থাতেও আর্থিক মন্দার কোপ এসে পড়েছে। ষষ্ঠ থেকে অষ্টম শ্রেণি পর্যন্ত ছাত্রছাত্রীদের এখনও পাঠ্যপুস্তক দিয়ে উঠতে পারেনি যোগী সরকার। রাজ্যের শিক্ষা দফতর জানিয়েছে, বই ছাপানোর মতো অর্থ তাদের কাছে নেই। এ দিকে– রবিবার দীপাবলি উপলক্ষ্যে অযোধ্যাতে ৫ লক্ষ প্রদীপ জ্বালানোর ব্যবস্থা করা হয় যোগী সরকারের তরফে। যা নিয়ে সমালোচকরা বলছেন, শিক্ষা ব্যবস্থাকে অন্ধকারে ঠেলে দিয়ে সরযু নদীরে তীরে ৫ লক্ষ প্রদীপ জ্বালাতে গিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী আদিত্যনাথ। 

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only