মঙ্গলবার, ১৫ অক্টোবর, ২০১৯

জিয়াগঞ্জ কেস: শিক্ষকের অন্তঃস্বত্ত্বা স্ত্রী, শিক্ষক, ছেলেকে খুন করে উৎপল, জানাল পুলিশ

রাজনীতি, সাম্প্রদায়িকতা, পারিবারিক বিবাদ–সব ধরনের শঙ্কাকে সরিয়ে জিয়াগঞ্জে ভয়াবহ খুনের সাত দিন পর খুনিকে ধরতে পারল পুলিশ। তাদের দাবি, খুনিকে ধরিয়ে দিল রক্তমাখা একটি বিমার কাগজ! মুর্শিদাবাদের জেলা পুলিশ সুপার মুকেশ কুমার মঙ্গলবার সাংবাদিক বৈঠক করে জানান, ধৃতের নাম উৎপল বেহরা।সে থাকত মুর্শিদাবাদেরই সাগরদিঘি থানার সাহাপুর গ্রামে। ২৪ হাজার টাকার একটি বিমা নিয়ে গোলমালের জেরেই আক্রোশবশত ওই খুন করেছিল বলে জেরায় জানিয়েছে উৎপল। আদালতে হাজির করানোর পর ধৃতকে আরও জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আপাতত ১৪ দিনের জন্য নিজেদের হেফাজতে নিয়েছে পুলিশ।

জিয়াগঞ্জের ঘটনাটিকে সাম্প্রদায়িক রূপ দেবার প্রাণপণ চেষ্টা করেছিল বিজেপি।নিহত সুপ্রকাশ বন্ধুকে তাদের দলের কর্মী বলে প্রথমে দাবি করেছিল তারা।তবে শেষ পর্যন্ত অবশ্য নিজেদের ভুয়ো দাবি থেকে সরে অাসতে হয়েছে।  

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only