শনিবার, ১৯ অক্টোবর, ২০১৯

সাভারকরকে ভারতরত্ন: কী বললেন কানহাইয়া কুমার?

চলতি মাসেই মারাঠা ভূমে নির্বাচনী লড়াই। সে দিকে তাকিয়ে নির্বাচনী ইস্তেহারে চমক দিতে চেয়েছে ফড়ণবীশ সরকার। প্রতিশ্রুতি দেওয়া হয়েছে– ফের ক্ষমতায় ফিরলে বিনায়ক দামোদর সাভারকরকে ভারতরত্ন  দেওয়ার প্রস্তাব কেন্দ্রের কাছে পাঠানো হবে। এবার সেই ইস্যুতে বিজেপিকে বিঁধলেন জওহরলাল নেহরু বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রাক্তনী কানহাইয়া কুমার। 
২১ অক্টোবর মহারাষ্ট্রে বিধানসভা নির্বাচন। তার আগে নির্বাচনী ইস্তেহার প্রকাশ করে রাজ্য বিজেপি। বলা হয়েছে– বিজেপি পুনর্নিবাচিত হলে বিনায়ক দামোদর সাভারকারকে ভারতরত্ন দেওয়ার জন্য কেন্দ্রের কাছে প্রস্তাব পাঠানো হবে। এর পাশাপাশি জ্যোতিবা ফুলে ও সাবিত্রীবাই ফুলের মতো সমাজসংস্কারকেও ভারতরত্ন  দেওয়া হবে বলে ইস্তেহারে বলা হয়েছে। সাভারকারকে ভারতরত্ন  দেওয়ার ওই প্রস্তাবের বিরোধিতা করে বিজেপিকে একহাত নিলেন কানহাইয়া কুমার। প্রার্থীর সমর্থনে নির্বাচনী প্রচারে গিয়ে তিনি বলেন– বিজেপি যদি এমনটা করে– তাহলে ওই সম্মানের জন্য ভগৎ সিং-এর নাম প্রস্তাব করা উচিৎ নয়। যদি গেরুয়া শিবির তা করে– তাহলে তা শহিদ ভগৎ সিংকে অপমান করা হবে।  
পাশাপাশি কানহাইয়া এদিন বিজেপিকে বিধে বলেন– বিজেপি শুধু ৩৭০ ধারা নিয়ে বলছে। কৃষক– বেকারত্ব– সড়ক– জলসংকট ইত্যাদি বিষয় নিয়ে কিছুই বলছে না। উল্লেখ্য– সাভারকরকে সর্বোচ্চ সম্মান দেওয়ার প্রস্তাব ঘিরে ঐতিহাসিক বিতর্ক শুরু হয়েছে। কারণ কারাবন্দি থাকাকালীন ইংরেজ সরকারের কাছে ক্ষমা চেয়েছিলেন সাভারকর। মহাত্মা গান্ধিকে হত্যাতেও নাম জড়ায় সাভারকরের। যদিও প্রমানের অভাবে খালাস পেয়ে যান হিন্দু মহাসভার ওই সদস্য। আর সেই বিতর্ককেই হাতিয়ার করে এদিন নির্বাচনী জনসভায় গেরুয়া শিবিরকে বিঁধলেন কানহাইয়া কুমার। 

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only