শুক্রবার, ৮ নভেম্বর, ২০১৯

গরুর দুধে সোনা ইস্যুতে দিলীপ ঘোষকে কটাক্ষ অনুব্রতর



পুবের কলম, ওয়েব ডেস্ক, বোলপুর: গরুর দুধে সোনা পাওয়া যাক আর না যাক। তাকে নিয়ে বিতর্ক থামতে চাইছে না। এই ইস্যুতে বোলপুর দলীয় কার্যালয়ে বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষকে কটাক্ষ অনুব্রতর। তিনি বলেন, দিলীপ ঘোষের জলাতঙ্ক হয়েছে। মানুষকে কুকুরে কামড়ালে এই রোগ হয়। তখন খুব কষ্ট হয়। ভুল বকে। ওরও তাই হয়েছে। কেন যে ডাক্তার দেখায় না! 

অনুব্রতর এই আক্ষেপ যে নকল তা বলার অপেক্ষা রাখে না। তবে, অনুব্রত বলেছেন, জলাতঙ্কের ওষুধ আবিষ্কার হয়নি। কিন্তু ১৮৮৫ সালে লুই পাস্তুর ও এমিলি রু যৌথ ভাবে প্রথম র‍্যাবিস টিকা আবিষ্কার করেন। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা হু র পরিসংখ্যান অনুযায়ী, প্রতি বছর আড়াই লাখ লোক এই টিকা নিয়ে জলাতঙ্ক থেকে বাঁচেন। তা সত্বেও এই কটাক্ষের মাধ্যমে হয়তো বলতে চেয়েছেন, দিলীপ বাবুর যে জলাতঙ্ক হয়েছে, সেটা সচরাচর যেটা দেখা যায় সেটা নয়। তাই এর নিরাময় নেই। তিনি দিলীপ বাবুকে পরামর্শ দিয়ে তারাপীঠ ও কঙ্কালীমার কাছে প্রার্থনা করতে বলেছেন। 


উল্লেখ্য, সম্প্রতি বর্ধমানে শহরে ‘ঘোষ ও গাভীকল্যাণ সমিতি’র সভায় দিলীপ ঘোষ বলেছিলেন, ‘‘গরুর দুধে সোনার ভাগ থাকে, তাই দুধের রঙ হলুদ হয়।’’ এই মন্তব্য সংবাদ মাধ্যমে ছড়াতেই সোশ্যাল মিডিয়ায় ঝাঁপিয়ে পড়ে নেটিজেনরা। অনুব্রতই সেই সুযোগ ছাড়বেন কেন? শুক্রবার দলীয় কার্যালয়ে বিজেপির তিন শতাধিক কর্মী তৃণমূলে যোগ দান করেন। অনুষ্ঠান শেষে দিলীপ ঘোষকে এই কটাক্ষের খোঁচা দেন তিনি।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only