শুক্রবার, ১ নভেম্বর, ২০১৯

দূষণের জেরে গ্যাস চেম্বার দিল্লি

দূষণের জেরে হাঁসফাঁস অবস্থা রাজধানীর। পরিস্থিতি এতটাই খারাপ যে দিল্লিতে ‘পাবলিক হেলথ্ এমার্জেন্সি’ অবস্থা জারি করা হয়েছে। পাশাপাশি ৫ নভেম্বর পর্যন্ত দিল্লির সবকটি স্কুলে ছুটি ঘোষণা করা হয়েছে।

প্রতি বছরের মতো এবারও শীত শুরুর আগে দূষণের চাদরে মুড়েছে দিল্লি ও সংলগ্ন এলাকা। চলতি বছর পরিস্থিতি এতটাই খারাপ যে দূষণের মাত্রা ‘সিভিয়ার প্লাস’ ক্যাটাগরিতে নেমে যায়। সুপ্রিমকোর্টের নির্দেশে গঠিত দূষণ নিয়ন্ত্রণ কর্তৃপক্ষ দূষণের ভয়াবহতার কথা মাথায় রেখে ৫ নভেম্বর পর্যন্ত রাজধানী ও সংলগ্ন এলাকার সমস্ত নির্মাণকার্য বন্ধ রাখার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। শীতের মরশুমে কোথাও বাজি পোড়ানো যাবে না বলেও  জানিয়েছেন তারা। পাশাপাশি ৫ নভেম্বর পর্যন্ত দিল্লির সবকটি স্কুলে ছুটি ঘোষণা করেছে  কেজরিওয়াল সরকার। 

এদিকে পরিস্থিতি হাঁসফাঁস হতেই শুরু হয়ে গেছে দোষারোপের পালা। দিল্লির এই পরিস্থিতির জন্য হরিয়ানা ও পাঞ্জাবের দিকে আঙুল তুলেছেন দিল্লির মুখ্যমন্ত্রী অরবিন্দ কেজরিওয়াল। টু্ইটারে নিজের ক্ষোভ উগরে দিয়ে লেখেন– ‘গ্যাস চেম্বারে পরিণত হয়েছে দিল্লি। পাঞ্জাব ও হরিয়ানার কৃষকরা ফসলের বাকি অংশ পুড়িয়ে দেওয়ার জন্যই এই পরিস্থিতি’। দূষণের গ্রাস থেকে কিছুটা রেহাই দিতে শুক্রবার সকালে স্কুল পড়ুয়াদের হাতে মাস্ক তুলে দেন। এরজন্য সরকারকে ৫০লক্ষ মাস্ক কিনতে হয়েছে বলেও জানান রাজ্যের প্রশাসনিক প্রধান। 

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only