বৃহস্পতিবার, ২১ নভেম্বর, ২০১৯

কেন গৃহবন্দি সৌদি রাজকন্যা বাসমাহ?



পুবের কলম, ওয়েব ডেস্ক, রিয়াদ: সম্প্রতি সৌদি রাজকন্যা বাসমাহ বিনতে সৌদির খোঁজ পাওয়া যাচ্ছে না বলে খবর ছড়িয়ে ছিল। আন্তর্জাতিক গণমাধ্যমে এই খবর বেশ সাড়া ফেলে ছিল।

কিন্তু এখন খবর, তাঁকে না কি গৃহবন্দি করা হয়েছে। জার্মান রাষ্ট্রীয় সংবাদমাধ্যমে ডয়চে ভেলের দাবি, তাঁকে গৃহবন্দি করে রেখে সৌদি সরকার। বাসমাহ সৌদির বাদশাহ সৌদ বিন আবদুল আজিজ আল সৌদের কন্যা।তিনি ১৯৫৩ থেকে ১৯৬৪ সাল পর্যন্ত সৌদির বাদশাহ ছিলেন।

৫৫ বছর বয়সী এই রাজকন্যা সমাজসংস্কারক হিসাবে বেশ পরিচিত।কিন্তু বর্তমান ক্রাউন প্রিন্স বিন সালমানের সৌদিকে মধ্যপন্থী ইসলামের দিকে চালানো করলেও বাহমাসের রাজনৈতিক সংস্কারের দাবিকে মানতে চায়নি সৌদি সরকার। ফলে সৌদি সরকারের রোষের মুখে পড়েছেন বাহমাস।তার বিরুদ্ধে এখন কোনও সুনির্দিষ্ট অভিযোগ আনা হয়নি।কিন্তু বাসমাহর দাবি গুলি এখন না কী সৌদি সরকারের যথেষ্ট মাথা ব্যাথার কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছে।

বাসমাহ দীর্ঘদিন ধরে সামাজিক ও মানবাধিকার সংগঠনের সঙ্গে যুক্ত।তাদের সঙ্গে সক্রিয়ভাবে কাজও করেন। এছাড়া সৌদি নারীদের বর্তমান অবস্থা নিয়ে প্রায় লেখালিখি করতেন। সৌদি সংবিধানের সংস্কার, সবার জন্য বাকস্বাধীনতা বিভিন্ন বিষয়ে মুখ খুলে ছিলেন। একই দাবিতে এক আলেমকেও কারাগারে নিক্ষেপ করে সৌদি সরকার। চিকিৎসার অভাবে ক্রমগত নির্যাতনের শিকার হয়ে সম্প্রতি মৃত্যু হয়েছে তাঁর।

সৌদি সরকারের বিরুদ্ধে কথা বললেই হত্যা, গুম, কারাদণ্ড দেওয়া হয়। এই সমস্ত অন্যায়ের বিরুদ্ধে ছিলেন প্রিন্সেস বাসমাহ। এছাড়া ক্রাউন প্রিন্স সালমানেরও সমালোচনায় মুখর হয়ে ছিলেন।
২০১২ সালে এক সাক্ষাৎকারে তিনি বলেছিলেন, ‘আমাদের রাজপরিবারের প্রায় ১৫ হাজার সদস্য রয়েছেন। এর মধ্যে ১৩ হাজারের এই ক্ষমতা বা সম্পদ ভোগের সুযোগ নেই। আমাদের প্রায় ২ হাজার ধনকুবের রয়েছেন। তাদের হাতে সব ক্ষমতা এবং সম্পদ। এই ২ হাজার ধনকুবেরের বিরুদ্ধে কারও কিছু বলার সাহস নেই।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only