শুক্রবার, ২০ ডিসেম্বর, ২০১৯

মুশাররফের দেহ তিনদিন ধরে ঝুলিয়ে রাখবে পাকিস্তান!


পুবের কলম ওয়েব ডেস্ক: রাষ্ট্রদ্রোহিতা অভিযোগে প্রাক্তণ সামরিক শাসক পারভেজ মুশাররফকে মৃত্যুদণ্ড দিল পাকিস্তানের আদালত। এর পাশাপাশি ওই আদালতের আরও নির্দেশ, মুশাররফের মৃত্যুদণ্ড কার্যকর করার আগেই যদি তাঁর মৃত্যু হয়, তাহলে  তার মৃতদেহ টেনে এনে তিনদিন সেটিকে ঝুলিয়ে রাখা হবে।
২০০৭ সালে নভেম্বরে অবৈধভাবে সংবিধান স্থগিত করে জরুরি অবস্থা জারি করায় রাষ্ট্রদ্রোহের অভিযোগ ওঠে তার বিরুদ্ধে। এই মামলায় তিনি দোষীও সাব্যস্ত হন। তাঁর অনুপস্থিতিতেই গত মঙ্গলবার মৃত্যুদণ্ডের রায় দিয়েছে পেশোয়ার হাইকোর্টের প্রধান বিচারপতির নেতৃত্বাধীন তিন বিচারকের একটি বিশেষ বেঞ্চ।
বৃহস্পতিবার এই রায়ের বিস্তারিত বিবরণ দেওয়া হয়। ১৬৯টি পাতা বিশিষ্ট রায়ের নির্দেশনামা অনুযায়ী, মোশাররফকে জীবিত ধরা না গেলে কিংবা সাজা কার্যকরের আগেই তার মৃত্যু হলে সেক্ষেত্রে “মৃতদেহ পাকিস্তানের রাজধানী ইসলামাবাদের ডি-চক এ নিয়ে গিয়ে তিনদিন ঝুলিয়ে রাখা (উচিত) হবে” বলে জানিয়েছে আদালত। পার্লামেন্টের বাইরেই ডি-চক এলাকা।
মোশাররফ বর্তমানে চিকিৎসার জন্য দুবাইয়ে আছেন। আদালত তাকে সবরকমভাবে পাকড়াও করার চেষ্টা চালানোর নির্দেশও দিয়েছে আইনপ্রয়োগকারী সংস্থাগুলোকে। রায়ের বিরুদ্ধে মোশাররফ সুপ্রিম কোর্টে আপিল করবেন বলে জানিয়েছেন তার আইনজীবীরা।
আদালতের ওইরকম অভিনব আদেশ দেওয়ার ঘটনার নজির মাত্র একটি পাওয়া যায়। এক সিরিয়াল খুনিকে জনসম্মুখে ফাঁসি দেওয়া এবং তার দেহ খুনের শিকার হওয়া ব্যক্তি ও তাদের পরিবারের সদস্যদের সামনে ১শটুকরা করার সাজা ঘোষণা করেছিল একটি আদালত। তবে তা কখনোই কার্যকর করা হয়নি।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only