মঙ্গলবার, ৩১ ডিসেম্বর, ২০১৯

ভারতের নয়া সেনাপ্রধান মনোজ, সিডিএস বিপিন


পুবের কলম ওয়েব ডেস্ক : ভারতের নয়া সেনাপ্রধান হিসেবে নিযুক্ত হলেন লেফটেন্যান্ট জেনারেল মনোজ মুকুন্দ নারভানে। তিনি জেনারেল বিপিন রাওয়াতের স্থলাভিষিক্ত হলেন। বিপিন রাওয়াত দেশের প্রথম ‘চিফ অফ ডিফেন্স স্টাফ’ (সিডিএস) হয়েছেন।

আজ (মঙ্গলবার) দায়িত্বভার গ্রহণ করার পরে গণমাধ্যমে দেওয়া সাক্ষাৎকারে জেনারেল মনোজ বলেন, ‘সন্ত্রাসবাদ বিশ্বব্যাপী সমস্যা, দীর্ঘদিন ধরেই ভারত সন্ত্রাসবাদের মুখোমুখি। এখন বিশ্বজুড়ে সন্ত্রাসবাদে আক্রান্ত বহু দেশ বুঝতে পারছে যে এটি কতটা বিপজ্জনক!’পাকিস্তানের নাম না উল্লেখ করে তিনি বলেন, আমাদের প্রতিবেশীর নীতিতে সন্ত্রাসবাদও অন্তর্ভুক্ত রয়েছে। ওঁরা সন্ত্রাসবাদের মধ্য দিয়ে আমাদের সঙ্গে ছায়া যুদ্ধ চালাচ্ছে। এটা দীর্ঘ সময় ধরে চলতে পারে না। বেশি সময় ধরে লোকেদের বোকা বানানো যাবে না।

তিনি বলেন, পাকিস্তানের পক্ষ থেকে যুদ্ধবিরতি ভঙ্গ করা হচ্ছে এবং অনুপ্রবেশ ঘটানোরও চেষ্টা হচ্ছে কিন্তু আমরা সম্পূর্ণ প্রস্তুত রয়েছি।
জেনারেল মনোজের দাবি, কাশ্মীরে ৩৭০ ধারা প্রত্যাহারের পরে সেখানকার পরিস্থিতির উন্নতি হয়েছে এবং সহিংসতার ঘটনা কমেছে।
এদিকে, আজ এক সংবাদ সম্মেলনে জম্মু-কাশ্মীর পুলিশের মহানির্দেশক দিলবাগ সিং বলেছেন, গতবছরের তুলনায় এবছর অনুপ্রবেশ ও সন্ত্রাসী সংগঠনে যোগ দেওয়ার ঘটনা অনেক কমেছে। ২০১৮ সালে অনুপ্রবেশের ঘটনা ১৪৩ হলেও ২০১৯ সালে তা কমে ১৩০ হয়েছে। চলতি বছরে সন্ত্রাসী সংগঠনে যোগ দেওয়া যুবকের সংখ্যাও কমেছে। ২০১৮ সালে, ২১৮ জন যুবক সন্ত্রাসবাদী সংগঠনে যোগ দিয়েছিল কিন্তু এবছর তা কমে ১৩৯ হয়েছে বলে পুলিশের ডিজি দিলবাগ সিং বলেন।

এদিকে, দীর্ঘ প্রায় পাঁচ মাস বন্ধ থাকার পরে আজ মঙ্গলবার মধ্য রাত থেকে জম্মু-কাশ্মীরে মোবাইলে মেসেজ বা এসএমএস পরিসেবা চালু হবে। রাজ্যটির প্রধান সচিব রোহিত কনসল আজ ওই তথ্য জানিয়েছেন। গত ৫ আগস্ট ৩৭০ ধারা প্রত্যাহার করে নেওয়ার পর থেকে সেখানে মোবাইল ফোন, এসএমএস, ইন্টারনেট ইত্যাদিতে বিধিনিষেধ জারি করা হয়েছিল।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only