বৃহস্পতিবার, ১৯ ডিসেম্বর, ২০১৯

নেই হুইল চেয়ার বা স্ট্রেচার, ধর্ষণের শিকার মেয়েকে কাঁধে নিয়ে মেডিক্যাল টেস্টে নিয়ে গেলেন বাবা (ভিডিয়ো)



পুবের কলম ওয়েব ডেস্ক: এক চরম চিকিৎসা উদাসীনতার সাক্ষী থাকল যোগী রাজ্য। হুইল চেয়ার বা স্ট্রেচার না পেয়ে  ধর্ষণের শিকার ১৫ বছরের মেয়েকে নিজের কাঁধে তুলে নিয়ে মেডিক্যাল টেস্টে করাতে নিয়ে গেলে এক বাবা। ঘটনাটি উত্তরপ্রদেশের ইটার একটি মহিলা হাসপাতালের।

ওই কিশোরীকে বাড়ি থেকে উঠিয়ে নিয়ে গিয়েছে ধর্ষণ করেন ১৯ বছরের প্রতিবেশী তরুণ। ঘণ্টার পর ঘণ্টা একটি ঘরের ভিতর ওই কিশোরীকে আটকে রেখে পৈশাচিক অত্যাচার চালায়। সুযোগ বুঝে পালাতে গিয়ে পা ভেঙে যায় তার। মনে জোরে কোন রকমে সেখান থেকে ভাঙা পা নিয়ে পালিয়ে আসে সে।

অভিযোগ পেয়ে গত ১৪ ডিসেম্বর অভিযুক্ত প্রতিবেশি তরুণ অঙ্কিত যাদবকে গ্রেফতার করে মারহেরা থানার পুলিশ। তাই নিয়ম অনুযায়ী,কিশোরীকে মেডিক্যাল টেস্টের জন্য হাসপাতালে পাঠানো হয়।

পুলিশ জানিয়েছে, একজন মহিলা কস্টেবলের সঙ্গে সরকারি হাসপাতালে তাদের পাঠানো হয়। হাসপাতালে ঢুকে দেখা যায় সেখানে কোনও স্ট্রেচার বা হুইল চেয়ার নেই। তাই উপায় না দেখে মেয়ে কাঁদে তুলে হাসপাতালের অন্দরে নিয়ে যান বাবা।
যোগীর রাজ্যের এই বেহাল চিকিৎসা পরিষেবার ভিডিয়ো এখন সোস্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল। হাসপাতালের এমন করুন অবস্থার কথা প্রশাসনও মেনে নিয়েছে।






একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only