রবিবার, ১৫ ডিসেম্বর, ২০১৯

নাগরিকত্ব আইনের বিরুদ্ধে বনগাঁ ও বাগদায় ধিক্কার মিছিল, কুশপুতল দাহ


এম এ হাকিম, বনগাঁ : উত্তর ২৪ পরগনা জেলার বনগাঁ ও বাগদায় এনআরসি ও সংশোধিত নাগরিকত্ব আইনের বিরুদ্ধে ধিক্কার মিছিল হয়েছে। রবিবার বনগাঁ শহরে তৃণমূল সমর্থিত ‘বনগাঁ মহকুমা অসংগঠিত শ্রমিক  ইউনিয়ন’-এর পক্ষ থেকে জাতীয় নাগরিকপঞ্জি বা এনআরসি বিরোধী ধিক্কার মিছিল হয়।
ওই ধিক্কার মিছিল থেকে ‘শান্ত ভারতকে অশান্ত করার চক্রান্তকারী বিজেপি হুঁশিয়ার’, ‘বিজেপি হঠাও দেশ বাঁচাও’, ‘মোদি হঠাও, দেশ বাঁচাও’, ‘এনআরসি মানছি না, মানবো না’ স্লোগান দেওয়া হয়।প্রতিবাদ মিছিলের অন্যতম আয়োজক ও সংগঠনের কর্মকর্তা নারায়ণ ঘোষ বলেন, ‘সারা ভারতকে অশান্ত করার জন্য মোদি সরকার সাধারণ নাগরিকদের বিরুদ্ধাচরণ করছে সেজন্য আমরা রাস্তায় নেমেছি। মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দোপাধ্যায়ার নির্দেশে রাজ্যে আমরা এনআরসি হতে দেবো না। আমরা এনআরসির বিরুদ্ধে।’
অন্যদিকে, রবিবার বিকেলে বাগদা ব্লকের নাটাবেড়িয়া বাজারে এনআরসি ও সংশোধিত নাগরিকত্ব আইনের বিরুদ্ধে তৃণমূলের ধিক্কার মিছিল হয়। এতে ‘মোদিজির কালো হাত ভেঙে দাও গুঁড়িয়ে দাও’, ‘মোদিজির কালা আইন মানছি না, মানবো না’ ইত্যাদি স্লোগান দেন বিক্ষোভকারীরা। মিছিল শেষে তাঁরা প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির কুশপুতল দাহ করেন।
ওই কর্মসূচিতে বাগদা বিধানসভা তৃণমূল কংগ্রেস কমিটির চেয়ারম্যান তরুণ ঘোষ, বাগদা পশ্চিম ব্লক তৃণমূল কংগ্রেস কমিটির সভাপতি অঘোর হালদার, কার্যকরী সভাপতি শিখা মন্ডল, বাগদা ব্লক তৃণমূল যুব কংগ্রেসের সভানেত্রী প্রতিমা রায়,  তৃণমূল নেতা সাধন বাগচি, শম্পা অধিকারী,  মহিলা তৃণমূল কংগ্রেসের সভানেত্রী মাধুরী সরকার প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only