মঙ্গলবার, ৪ ফেব্রুয়ারী, ২০২০

রাজ্য সরকার ও রাজ্যপালের হেলিকপ্টার দ্বৈরথের ইতি, কপ্টারেই শ্রীনিকেতনের মাঘমেলায় আসছেন রাজ্যপাল!

দেবশ্রী মজুমদার, শান্তিনিকেতন:  ইঙ্গিত আগেই মিলেছে। রাজ্য সরকার ও রাজ্যপালের সম্পর্কের বরফ গলতে শুরু করেছে। এদিন বোলপুরে ফিরহাদ হাকিমের গলায় ফের সেই সুর শোনা গেল, সাংবাদিকের প্রশ্নের উত্তরে।  এদিন বিতর্কে জল ঢেলে দিয়ে ফিরহাদ হাকিম বলেন, রাজ্যের যখন  হেলিকপ্টার থাকবে, তখন অবশ্যই দেবে। না থাকলে কী করে দেবে? সেটা নিয়ে রাজনীতি করা উচিত না।  

উল্লেখ্য,  আগামী ৬ ফেব্রুয়ারি রাজ্য সরকারের দেওয়া হেলিকপ্টারে করে শ্রীনিকেতনের বার্ষিক উৎসব তথা মাঘ মেলার উদ্বোধন করতে আসছেন জগদীপ ধনখড়।

শিক্ষা ও পল্লী সংস্কারের সঙ্কল্প নিয়ে শান্তিনিকেতন আশ্রমের পত্তনে  অন্যতম প্রাণকেন্দ্র শ্রীনিকেতন। যেখান থেকেই কবি পল্লী সংগঠনের কাজের সূচনা করেছিলেন। ১৯২২ সালের ৬ ফেব্রুয়ারি সরুল গ্রামের উপকন্ঠে পল্লী সংগঠনের কাজের প্রতিষ্ঠা করেন।সেই সময় কবির সহযোগী ছিলেন লেনার্ড এলম হাসর্ট। এই কাজের মধ্যে দিয়ে কবির শ্রীনিকেতন প্রতিষ্ঠার শুভ সূচনা হয়। সেই সময় থেকেই প্রতিবছর ৬ ফেব্রুয়ারি থেকে তিন দিন ব্যাপী শ্রীনিকেতনের বার্ষিক উৎসব ও মাঘ মেলার সূচনা হয়।

 এ বছর মাঘ মেলার উদ্বোধন করতে আসছেন রাজ্যপাল তথা বিশ্বভারতী রেকটর জগদীপ ধনখড়, এছাড়াও প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন কেন্দ্রীয় মানব সম্পদ উন্নয়ন মন্ত্রকের সচিব অমিত খাড়ে, উপাচার্য বিদ্যুৎ চক্রবর্তী।

    বিশ্বভারতী সূত্রে জানা গেছে, ৬ তারিখ রাজ্যপালের কপটার শ্রীনিকেতনের পল্লী শিক্ষা ভবনের  মাঠে নামবে সকাল সাড়ে আটটায়। সেখান থেকে সোজা শ্রীনিকেতনের ফেস্কো মঞ্চে পৌঁছবে রাজ্যপালের কনভয়। প্রতিবছর সকাল সাড়ে আট টায় মাঘ মেলার অনুষ্ঠানের সূচনা হয়।  তবে এবার রাজ্যপালের কপটার যেহেতু সাড়ে আটটায় পৌঁছবে তাই অনুষ্ঠান পিছিয়ে ৯টায় শুরু করা হচ্ছে।

প্রসঙ্গত, এর আগে রাজ্যের একাধিক অনুষ্ঠানে হেলিকপ্টার চেয়ে না পাওয়ায় কারণে রাজ্যপাল রাজ্য সরকারের মধ্যে সংঘাত হয়। এমনকি কলকাতা থেকে মুর্শিদাবাদের  স্কুলের অনুষ্ঠানে যোগ দেবার জন্য গাড়িতেই রওনা  দিয়েছিলেন তিনি।

রেক্টর হিসেবে বিশ্বভারতী আমন্ত্রিত মাঘ মেলার অনুষ্ঠানে সকালে যোগ দেবার জন্য রাজ্য সরকারের কাছে হেলিকপ্টার চাইলে তার অনুমতি মিলেছে বলে জানা গেছে। এই বিষয়ে বিশ্বভারতীর জনসংযোগ আধিকারিক অনির্বাণ সরকার বলেন ৯৮ তম শ্রীনিকেতনের প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী অনুষ্ঠানের জন্য আমরা রাজ্যপাল জগদীপ ধনকড়কে আমন্ত্রন জানিয়েছি। উনি আমাদের আমন্ত্রনে সাড়া দিয়েছেন।

বোলপুরের মহকুমা শাসক অভ্র অধিকারী বলেন, রাজ্যপালের শ্রীনিকেতনে আসার জন্য পল্লী শিক্ষা ভবনের মাঠে হেলিপ্যাড তৈরি করা হচ্ছে।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only