শুক্রবার, ৭ ফেব্রুয়ারী, ২০২০

শাহিনবাগে ইস্যুতে বিতর্কিত মন্তব্যের জের, যোগী আদিত্যনাথকে নোটিশ ধরাল কমিশন

শাহিনবাগ ইস্যুতে এবার বিপাকে উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথ। সম্প্রতি তিনি অভিযোগ করেন– ‘দিল্লিবাসীর উন্নতির বদলে শাহিনবাগের আন্দোলনকারীদের বিরিয়ানি খাওয়াতেই ব্যস্ত কেজরিওয়াল।’ এই মন্তব্যের জেরে যোগী আদিত্যনাথকে নোটিশ পাঠাল নির্বাচন কমিশন।

দিল্লিতে নির্বাচনী প্রচারে প্রথম গিয়েছিলেন উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথ। আর প্রথম দিনেই বিতর্কে জড়ান তিনি। মুখ্যমন্ত্রীর কু-কথার জেরে তাঁকে নোটিস পাঠাল কমিশন। নির্বাচনী বিধি ভঙ্গের দায়ে এই নোটিস ধরানো হয়েছে তাঁকে। শনিবার দিল্লিতে ভোট। তার আগের দিন অর্থাৎ শুক্রবার বিকেল ৫টার মধ্যে জবাব তলব করেছে কমিশন। যদি জবাব না দেন ওই সময়ের মধ্যে– তাহলে তাঁর বিরুদ্ধে যথাযথ পদক্ষেপ নেবে বলে জানিয়েছে কমিশন।
গত ১ তারিখ দিল্লির বদরপুর কেন্দ্রে আদিত্যনাথ অভিযোগ করেন– ‘দিল্লি সরকার মানুষকে বিষাক্ত জল খাওয়াচ্ছে। কেজরিওয়াল দিল্লিবাসীকে পরিশ্রুত জল সরবরাহ করতে পারেন না। অথচ শাহিনবাগের বিক্ষোভকারীদের বিরিয়ানি খাওয়াচ্ছেন’। সেই জনসভা থেকেই মোদির প্রশংসা করে যোগী বলেন– ‘নরেন্দ্র মোদি প্রধানমন্ত্রী হওয়ার পর থেকে আমরা সন্ত্রাসবাদের মোকাবিলা করছি। বিরিয়ানির বদলে গুলি খাওয়াচ্ছি’।

এর পাশাপাশি আরও একটি জনসভা থেকে কংগ্রেস ও আম আদমির বিরুদ্ধে তোপ দাগেন যোগী। বলেন– সন্ত্রাসবাদীদের প্রতি জিরো টলারেন্স নীতি গ্রহণ করেছে বিজেপি। কেজরিওয়াল বিরিয়ানি ও শাহিনবাগ নিয়েই ব্যস্ত। এদিকে যোগীর বিতর্কিত  মন্তব্যের জন্য যখন জলঘোলা হওয়া শুরু– তার মধ্যেই ফের বিতর্কিত মন্তব্য করে বসেন মুখ্যমন্ত্রী। বিবিসি হিন্দি-কে দেওয়া একটি সাক্ষাৎকারে তাঁর দাবি– দেশভাগের সময় ভারতে থেকে গিয়ে মুসলিমকরা কারও ওপর কোনও দয়া করেননি।  মুসলিমদের উচিত ছিল বিভাজনের বিরোধিতা করা। স্বাভাবিকভাবেই এই বিতর্কিত মন্তব্য জোর চাপে ফেলেছে যোগী আদিত্যনাথকে।


একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only