বৃহস্পতিবার, ২৬ মার্চ, ২০২০

আইন অমান্যকারীকে লাঠিচার্জ স্বরুপনগর বিডিওর !


পুবের কলম ওয়েব ডেস্ক: লকডাউন আইন অমান্যকারীকে লাঠি মারার অভিযোগ উঠল বিডিওর বিরুদ্ধে। উত্তর ২৪ পরগনার স্বরূপনগর ব্লকের বিডিও বিপ্লব বিশ্বাস বুধবার স্বরূপনগর এলাকায় রাস্তায় নেমে পড়েন সিভিল ডিফেন্সের কর্মীদের নিয়ে । সকলের হাতে লাঠি সহ বিডিও নিজেও লাঠি হাতে নিয়ে তেড়ে আসেন রাস্তায় চলাচলকারি জনসাধারণের দিকে। এই ঘটনায় অবাক এলাকাবাসী সহ পুলিশও।  বিডিও  বিপ্লব বিশ্বাসের সঙ্গে  যোগাযোগ করা হলে তিনি  টেলিফোনে  সাফাই দিয়ে বলেন , তিনি পথে নামেন এমনি। লাঠি নিয়ে মারতে নয়, ভয় দেখাতে।

এদিকে ঘটনার প্রেক্ষিতে বিতর্ক তৈরি হয়েছে পুলিশ মহলেও। কি করে একজন ব্লক ডেভেলপমেন্ট অফিসার হাতে লাঠি নিতে পারেন?এই নিয়ে পুলিশ প্রশাসন মহলে তীব্র সমালোচনা। আইন নিজের হাতে তুলে নিয়ে কেন তিনি লাঠি দিয়ে রাস্তায় নেমেছেন। আইন ভঙ্গকারীদের জন্য  প্রশাসন আছে। সাধারণ মানুষ থেকে শুরু করে পুলিশমহল এই ঘটনাকে ভালো চোখে নেযনি। একজন বিডিও কিভাবে আইন অমান্য করে রাস্তায় নামেন তার তদন্ত হওয়া দরকার বলে মনে করেন কেউ কেউ। 

স্বরুপনগর পঞ্চায়েত সমিতির পুর্ত কর্মাধ্যক্ষ রমেন সরদার বলেন, একজন বিডিওকে লাঠি হাতে নিয়ে রাস্তায় নামতে দেখিনি কখনো । এটাকে সমর্থন করি না। আইন এর চোখে তিনি নিজেও একজন আইন অমান্যকারী বলেই মনে হলো। একজন সিভিল অফিসার বা বিডিও  পুলিশ প্রশাসনকে নির্দেশ দিতে পারেন কিন্তু কখনো নিজে আইন হাতে তুলে নিতে পারেন না। 

পাশাপাশি তিনি আবেদন করেন, যাতে লকডাউন এর এক্তিয়ারের বাইরে থাকা জরুরী পরিষেবা নিতে বাইরে যাওয়া কোন পথচারী বা সাধারণ মানুষ পুলিশ দ্বারা আক্রান্ত না হন তার জন্য পুলিশ আধিকারিকদের দায়িত্ব নিতে হবে।পাশাপাশি বিডিও সাহেব নিজেও এ ব্যাপারে নজরদারি করতে পারেন বলে মন্তব্য করেন তিনি। 

এদিকে সবজি বিক্রেতাদের বাজার থেকে হটিয়ে দেওয়ার অভিযোগ উঠল পুলিশের বিরুদ্ধে। বুধবার হঠাৎগঞ্জ হাটে এলাকার কয়েক হাজার চাষী তাদের মূল্যবান সবজি বিক্রি করতে না পেরে  ক্ষোভে  ও প্রতিবাদে রাস্তার ওপরে ঢেলে দিয়ে চলে যান। এই ঘটনায় তীব্র ক্ষোভ তৈরি হয়েছে এলাকাবাসীর মধ্যে। মুখ্যমন্ত্রীর ঘোষণা মত সবজি বিক্রির পূর্ণ সুযোগ না দিলে তারা বৃহত্তর আন্দোলনের পথে নামার হুমকি দিয়েছে।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only