শুক্রবার, ৬ মার্চ, ২০২০

৫ বছর আগে মৃত ব্যক্তি নাকি ধর্ষণ করেছেন! আদালতের রোষে পুলিশ

আসলাম হোসেন
পাঁচ বছর আগে মৃত্যু হয়েছে। অথচ সেই ব্যক্তির বিরুদ্ধে মাস তিনেক আগে ধর্ষণ এবং খুনের চেষ্টার মামলা রুজু করেছে পুলিশ। তদন্তকারী অফিসারের এমনই তদন্তে কার্যত চোখ কপালে উঠেছে পাড়া-পড়শি থেকে শুরু করে আইনজীবীদের। পশ্চিম মেদিনীপুরের চন্দ্রকোনা থানার এমনই একটি মামলায় পুলিশের ভূমিকা নিয়ে কার্যত প্রশ্ন উঠেছে। 

মঙ্গলবার কলকাতা হাইকোর্টে এই মামলাটির শুনানিতে বিচারপতি জয়মাল্য বাগচী পুলিশের উদ্দেশ্যে মন্তব্য করেন, ‘মামলা রুজু করার আগে ভালো করে খোঁজ খবর নিন কেউ বেঁচে আছেন কি না।’
সম্প্রতি  জমি বিবাদ সংক্রান্ত একটি মামলায় আগাম জামিন চেয়ে কলকাতা হাইকোর্টের দ্বারস্থ হয়েছিলেন বিজয় বারুই, রনজিত বারুই সহ পাঁচ জন অভিযুক্ত। 

তাদের আইনজীবী সৌম্যশুভ্র রায় জানান, বিজয় বারুইয়ের দাদা অজয় বারুই। তিনি বছর পাঁচেক আগে হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে মারা যান। গত ডিসেম্বরে জমি বিবাদকে ঘিরে এক প্রতিবেশী মহিলা অজয়ের বিরুদ্ধে ধর্ষণ এবং মারধরের অভিযোগ তোলেন। পুলিশও প্রাথমিক তদন্তের পর মামলা রুজু করে এবং তাতে অজয়ের নামও দেয়। 

এরপরেই অভিযুক্তরা আগাম জামিন চেয়ে কলকাতা হাইকোর্টের দ্বারস্থ হন। এই মামলায় পুলিশের বিরুদ্ধে নিষ্ক্রীয়তার অভিযোগ তোলেন আইনজীবী সৌম্যশুভ্র। পুলিশও তা নিয়ে সদূত্তোর দিতে পারায় তাদের শর্তসাপেে ক্ষ আগাম জামিন মঞ্জুর করে আদালত। 

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only