রবিবার, ১৭ মে, ২০২০

বীরভূমের পরিযায়ী শ্রমিকদের অর্থ হাতিয়ে চম্পট, এলাহাবাদ থেকে হেঁটে ফিরছেন বাড়ি!



পুবের কলম ওয়েব ডেস্ক:  একেই বলে, কারো পৌষ মাস, কারো সর্বনাশ!বীরভূমের পরিযায়ী শ্রমিকদের অর্থ হাতিয়ে চালক চম্পট। এলাহাবাদ থেকে হেঁটে তাঁরা ফিরছেন বাড়ি! উত্তর প্রদেশের পুলিশের কাছ থেকে পেলো না কোন মানবিক ব্যবহার! 

বীরভূমের ৫০ জন পরিযায়ী শ্রমিক এক ট্রাক ড্রাইভারকে জনাপিছু সাড়ে চার হাজার টাকা ভাড়া রফা করে বীরভূমের বোলপুরে পৌঁছাতে। টাকাও দিয়ে দেন। তাঁরা মুম্বাইয়ের ঘাঠকাপর থেকে আসছিলেন। উত্তর প্রদেশের সীমান্ত এলাকার কাছে আসতেই চালক তাঁদের সীমান্ত এলাকা টুকু হেঁটে যেতে পরামর্শ দেন। কারণ সীমান্ত এলাকা লোড গাড়ি নিয়ে যেতে দেবে না। সেই পরামর্শ মেনে শ্রমিকরা নামলো ঠিকই, কিন্তু ট্রাক তাদের ফেলে চম্পট দিল। এরপর কিছুটা রাস্তা বাসে গেলেও, এলাহাবাদের রাস্তায় তাদের নামিয়ে দেয়। বর্তমানে তাঁরা পায়ে হেঁটে বাড়ি ফিরছে নিঃস্ব অবস্থায়। নেই খাবার দাবারের ব্যবস্থা! 

সাহিরুল শেখ, সেখ আলমগীর, নুর আলমরা জানান, পঞ্চাশ জন শ্রমিক তারা গতকাল একটি ট্রাক ভাড়া করে মুম্বাই থেকে বীরভূম ফিরছিল।ট্রাকের ড্রাইভারের সাথে মাথা পিছু সাড়ে চার হাজার টাকা ভাড়া ঠিক হয়।কিন্তু আজ সকালে উওরপ্রদেশের এলাহাবাদের কোন একটা জায়গায় তাদের নামিয়ে দিয়ে ট্রাক চম্পট দেয়।তারা ট্রাকের নম্বর ও ড্রাইভারের মোবাইল নম্বর দিয়ে লোকাল থানায় ব্যাপারটি জানাই।এই মুহুর্তে তাদের সরকারী বাসে তোলা হয়েছে।কিন্তু কিছু টা রাস্তা গিয়ে নামিয়ে  দেওয়া হয়। পরিযায়ী শ্রমিকদের মধ্যে ২ জন লাভপুরের কুসুমগড়িয়া গ্রামের। বাকি ৪৮ জন বোলপুরের কসবা গ্রামের।

এব্যাপারে জেলা শাসক মৌমিতা গোদারাকে ফোন করা হলে, তিনি ফোন কেটে দেন। অন্যদিকে মন্ত্রী চন্দ্র নাথ সিনহার ফোন বন্ধ থাকায় তাঁর কোন প্রতিক্রিয়া পাওয়া যায়নি।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only