মঙ্গলবার, ২৩ জুন, ২০২০

শ্রমিকদের জন্য গান গেয়ে নজর কাড়ল অজিত

রেজাউল করিম, মোথাবাড়ি: পরিযায়ী শ্রমিকেরা দুর্দশার মধ্যে দিন অতিবাহিত করছে। ব্যথিত করে গাজোলের কলেজ পড়ুয়া অজিত সরকারকে। তিনি পরিযায়ী শ্রিককের কষ্টের কথা নিজে গেয়ে প্রকাশ করেন। তাতেই হিট তাঁর গান। ইতিমধ্যে জি মিউজিক গানটি তারা গ্রহণ করে নিজেরা প্রকাশ করেছে। এরপরই তাঁর কিছু মৌলিক গান অন্যান্য চ্যানেল প্রকাশ করতে চলেছে। অজিতের গান এখন গাজোলবাসীর মুখে মুখে। এলাকার ছেলেকে শুভেচ্ছা জানিয়েছেন তাঁরা। সাধারণ পরিবারের ছেলের গান গোটা দেশ শুনছে এখন। 

জানা গেছে, অজিতের বাড়ি গাজোল ব্লকের মাঝরা গ্রাম পঞ্চায়েতের নেতাজীপল্লী এলাকায়। বছর একুশের অজিত গৌড় কলেজের তৃতীয় বর্ষের বিজ্ঞান বিভাগের ছাত্র। সাধারণ পরিবারের ছেলে। বাবা আনন্দ সরকার একজন সাইকেল মেরামতকারীর কাজ করেন সংসার চালান। ছোট থেকেই গানের প্রতি আকর্ষণ আনন্দের। বাবা কষ্ট করেও গান শিখিয়ে চলেছেন। নজরুল গীতি ও আধুনিক গান পছন্দ অজিতের। চলতি বছরের শুরুতে সারা দেশে নজরুল গীতিতে সেরা হন তিনি। 

সর্বভারতীয় সঙ্গীত সমিতি আয়োজিত প্রতিযোগিতায় তিনি সোনা পান। এদিকে করোনা আবহের ওপর গান গেয়ে আরও নজির তৈরি করেন তিনি। লকডাউনে পরিযায়ী শ্রমিকদের কষ্ট তিনি নিজের গলায় প্রকাশ করেন। তাঁর ‘শহরে শহরে কান্না’গানটি ইতিমধ্যে হিট। পরিযায়ী শ্রমিকদের খেতে না পাওয়া, ওই অবস্থায় হেঁটে নিজেদের বাড়ির দিকে ফেরা-তাঁদের দু:খের কথা গানের মাধ্যেমে তুলে ধরেন তিনি। গানের কথা ও সুর পেশায় শিক্ষক অভিজিৎ লাহিড়ীর। নিজের স্টুডিওতেই গানটি রেকর্ডিং হয়েছে। পছন্দ করেছে জি মিউজিক। 

তাঁরা নিজের কোম্পানির হয়ে গানটি প্রকাশ করাতেই বেশ জনপ্রিয় হয়ে উঠেছে অজিতের গান। অজিত বলেন,‘পরিযায়ী শ্রমিকদের কষ্টের কথা আমাদের খুব ব্যথিত করে। তা আমরা গানের মাধ্যমে প্রকাশ করি। অনেক মানুষের শুভেচ্ছা মেলেছে। ভাল লাগছে।’

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only