শুক্রবার, ১৯ জুন, ২০২০

প্রশ্ন অনেক, উত্তর অজানা

সারা দেশে চলছে আনলক ওয়ান  দীর্ঘ বেশ কয়েকদিন যাবত দেশ দেখল লকডাউন ওয়ান, টু, থ্রী, ফোর  সাক্ষী ১৩০ কোটি জনগণ।  অর্থনীতি ঝুলে পড়া, বেকারত্ব, কর্মী ছাঁটাই, খাদ্য অমিল দেখা দেওয়ার পাশাপাশি আরও একটা বিষয় মানুষকে নাড়িয়ে দিয়েছে ‘পরিযায়ী শ্রমিক’। দুটো পয়সা বাড়তি পাওয়ার আশায় যারা ঘরবাড়ি ছেড়ে, পরিবার-পরিজন ছেড়ে ফি বছর ভিন রাজ্যে কাজের সন্ধানে পাড়ি দেয়।
  
লকডাউনের জেরে কাজ হারিয়ে একটাই লক্ষ--- বাড়ি  ফেরা। আর গন্তব্যস্থলে যাওয়ার পথে বাড়ি ফেরার তাড়নায় কখনও এঁদের ওপর দিয়ে পণ্যবাহি ট্রেন চলে যায় তো, কখনও আবার এদেরকে বাস পিষে দিয়ে চলে যায়।  পড়ে থাকে এদের রক্তের চাপা দাগ, আচার মাখা রুটি, ছেড়া জামাকাপড়।

ওয়ার্ল্ড ব্যাঙ্কের তথ্য অনুযায়ী, কমবেশি ৪০ মিলিয়ন অসহায় পরিযায়ী শ্রমিক তারা কখনও খেতে পেয়েছে, তো কখনও পায়নি।  প্রতিবাদ করলে জুটেছে শোষকের চোখ রাঙানি।  ক্লান্ত হয়ে ক্ষুধার জ্বালায় জল না পেয়ে মাইলের পর মাইল তারা রেললাইনের ধার দিয়ে হেঁটেছে। কখনও কিলোমিটারের পর কিলোমিটার সাইকেল চালিয়ে বহু রাজ্য পার করে পা বাড়িয়েছে বাড়ির পথে।  বেশ কয়েকদিন আগে বিহারের মজফফরপুর রেলস্টশনে ছোট্ট শিশুর মৃত মাকে জাগিয়ে তোলার ঘটনা নাড়া দিয়ে যায় সকলকে।  সর্বোপরি ইতিহাস কি ক্ষমা করবে? প্রশ্ন অনেক, উত্তর অজানা।   

অদিতি চট্টোপাধ্যায় 
বর্ধমান 


একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only