শনিবার, ২৫ জুলাই, ২০২০

বাবরি ধ্বংসঃ আদবানিকে ১০০ প্রশ্ন আদালতের



পুবের কলম ওয়েব ডেস্ক: বর্ষীয়ান বিজেপি সাংসদ সুব্রহ্মণ্যম স্বামী থেকে শুরু করে শিবসেনা একযোগে দাবি করেছে লালকৃষ্ণ আদবানি, মুরলী মনোহর যোশিদের মতো নেতাদের বিরুদ্ধে বাবরি মসজিদ ধ্বংস মামলা খারিজ করা হোক। এই পরিস্থিতিতে শুক্রবার বাবরি মসজিদ ধ্বংস মামলায় আদবানির জবানবন্দি নিল লখনউয়ের এক স্পেশাল সিবিআই আদালত। ১৯৯২ সালের বাবরি মসজিদ ধ্বংসের ঘটনায় ৯২ বছরের এই প্রবীণ বিজেপি নেতাকে প্রায় ১০০টি প্রশ্নের মুখে পড়তে হয়েছে বলে জানা গিয়েছে। মোট সাড়ে চার ঘণ্টারও বেশি সময় ধরে এই শুনানিপর্ব চলে। ভিডিয়ো কনফারেন্সের মাধ্যমে এ দিন আদালতের শুনানিতে অংশ নেন আদবানি। 
এ দিন সকাল ১১টা থেকে সাড়ে ৩টা পর্যন্ত এই শুনানি চলে। প্রবীণ এই বিজেপি নেতার আইনজীবী জানিয়েছেন, তাঁর মক্কেলকে ১০০টি প্রশ্ন জিজ্ঞাসা করা হয়েছিল। সেখানে আদবানিজি তাঁর বিরুদ্ধে ওঠা সমস্ত অভিযোগ অস্বীকার করেছেন। উল্লেখ্য,দৈনন্দিন শুনানির মাধ্যমে ৩১ আগস্টের মধ্যে বিচার প্রক্রিয়া শেষ করে রায় ঘোষণা করতে হবে সিবিআই আদালতকে। বিশেষজ্ঞদের অনেকেই মনে করছেন, ৫ আগস্ট অযোধ্যায় রাম মন্দিরের বিরাট ভূমিপুজো অনুষ্ঠান। তার আগে এই স্পেশাল সিবিআই আদালত আদবানি-যোশিদের ক্লিনচিট দিলে তাঁরা ‘স্বচ্ছ’ ভাবমূর্তি নিয়ে সেই অনুষ্ঠানে উপস্থিত থাকতে পারবেন।

শুনানির আগে বুধবারই আবার খোদ কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ কথা বলেছিলেন আদবানির সঙ্গে। তাঁদের মধ্যে আধ ঘণ্টারও বেশি কথা হয়েছিল। ফলে জল্পনা আরও বাড়ছে। আদাবানি ছাড়াও মুরলী মনোহর যোশি,উমা ভারতীও বাবরি মসজিদ ধ্বংস মামলায় অভিযুক্তদের তালিকায় রয়েছেন। বৃহস্পতিবারই ভিডিয়ো কনফারেন্স মারফত ৮৪ বছরের যোশি আদালতে নিজের জবানবন্দি দিয়েছেন। সেখানে তিনি দাবি করেন,তাঁর বিরুদ্ধে যে সমস্ত অভিযোগ তোলা হয়েছে সবটাই অসত্য। রাজনৈতিক কারণেই তাঁর বিরুদ্ধে এইসব অভিযোগ তোলা হয়েছে।   

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only