মঙ্গলবার, ২৮ জুলাই, ২০২০

করোনায় আক্রান্ত প্রাক্তন কাউন্সিলার-সমবায় ব্যাঙ্কের ভাইস চেয়ারম্যান, আতঙ্কের আবহ



পুবের কলম ওয়েব ডেস্ক: এবার মারন ভাইরাস করোনার শিকার হলেন, কাঁথি পুরসভার এক প্রাক্তন কাউন্সিলার।আক্রান্ত হয়েছেন একটি সমবায় ব্যাঙ্কের ভাইস চেয়ারম্যান ও তাঁর স্ত্রীও।এছাড়াও শহরের বিভিন্ন প্রান্তের বাসিন্দা কয়েকজন করোনা আক্রান্ত হওয়ায় স্বাভাবিক কারণে আতঙ্ক বাড়ছে। সেই সঙ্গে বাড়ছে ক্ষোভ।

শহরের মোড়ে মোড়ে ব্যবসায়ীরা পসরা সাজিয়ে বসায় মানুষের ভিড় বাড়ছে। তাতে সংক্রমণ আরও বেশি ভাবে ছড়িয়ে পড়ছে বলে অভিযোগ। তাই প্রশাসনের কাছে কঠোর ব্যবস্থা গ্রহণ করার দাবি রেখেন সাধারণ মানুষ। অভিযোগ পেয়ে পুলিশ কিছু বাইক ধড়পাকড় করেছে। কিন্তু তাতে সন্তুষ্ট নয় স্থানীয়রা। পুলিশের কাছে তাদের প্রশ্ন-একটা কনটেনমেন্ট জোনে কি ভাবে এতো মানুষ রাস্তায় নামে, এতো দোকান খোলা হয়, দু'চাকা-চার চাকার গাড়ি রাস্তায় চলাচল করে। 

করোনা সংক্রমণ ঠেকাতে কাঁথি পুরসভার ২১টি ওয়ার্ডকেই কনটেনমেন্ট জোন ঘোষণা করেছে জেলা প্রশাসন।এই সিদ্ধান্ত অনুযায়ী, এই এলাকায় বন্ধ রাখতে হবে সমস্ত সরকারী-বেসরকারী অফিস, দোকান বাজার।নিত্য প্রয়োজনীয় সামগ্রী ছাড়া ছাড়া কোন দোকান খোলা থাকবে না সহ ইত্যাদি নিয়ম বলবৎ হয়। তার পরেও প্রশাসন কেন কঠোর হচ্ছে না? প্রশ্ন আরো উঠছে কারণ শহরের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে নিত্যদিন নতুন নতুন করে চার-পাঁচ জন করোনা আক্রান্তের সন্ধান পাওয়া যাচ্ছে।এমনকি এক ব্যবসায়ীর মৃত্যুর ঘটনাও ঘটেছে।

অপরদিকে জানা গেছে, করোনা আক্রান্ত এক সমবায় ব্যাংক কর্মীকে কলকাতায় স্থানান্তরিত করা হয়েছে।ওই কর্মীর সংস্পর্শে আসা ব্যক্তিদের পরীক্ষা করানোর পরামর্শ দেওয়া হয়েছে। পাশাপাশি কাঁথির একটি বহুজাতিক সংস্থার শোরুমের মালিক তথা সমবায় ব্যাঙ্কের ভাইস চেয়ারম্যান এবং তাঁর স্ত্রী করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন।

চিকিৎসার জন্যে তাঁদের কলকাতায় বেসরকারী হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে বলে বিভিন্ন সূত্রে জানা গেছে । সেই সঙ্গে কাঁথির শেরপুর শিবমন্দির এলাকার বাসিন্দা এক টোটো চালক ও ব্যবসায়ী করোনা আক্রান্ত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে। ওই ব্যক্তির পরিবারের সদস্য এবং বন্ধু-বান্ধব সকলের এখনও পরীক্ষা না হওয়ার  কারণে ওই এলাকায় যাতায়াত বন্ধ করে দিয়েছে পুর প্রশাসন। কাঁথির মনোহরচক এলাকায় পিতা ও পুত্র আক্রান্তের পর আরও আক্রান্ত সংখ্যা বাড়ার সম্ভাবনা রয়েছে বলে বিশ্বস্ত সূত্রে খবর।এছাড়াও করোনা আক্রান্ত হয়েছেন কাঁথি পুরসভার এক প্রাক্তন কাউন্সিলার।

পদ্মপুকুরিয়া এলাকার বাসিন্দা তথা কাঁথি সুপার মার্কেটের ভুসিমাল ব্যবসায়ী এই প্রাক্তন কাউন্সিলার সুগার, প্রেসার সহ অন্যান্য রোগের চিকিৎস্যার জন্যে প্রতিবেশী রাজ্য ওড়িষ্যায় গিয়েছিলেন। সেখানেই চিকিৎসাধীন থাকা অবস্থায় কোন ভাবে  কোভিড ১৯ পজেটিভ হয়েযান। তিনি ভর্তি ওডিশার ভুবনেশ্বরের একটি বেসরকারি নার্সিং হোমে। ওনার শারীরিক পরিস্থিতি সংকট জনক বলে জানা গেছে। অগত্যা পরিবারের সঙ্গে যোগাযোগ হচ্ছে ভিডিও কলের মাধ্যমে। সব মিলিয়ে চরম আতঙ্কে কাঁথি।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only