শুক্রবার, ৩ জুলাই, ২০২০

করোনার বিসিজি ক্লিনিক্যাল ট্রায়াল শুরু কলকাতায়

পুবের কলম প্রতিবেদক: দেশের বাছাই করা কয়েকটি শহরের সঙ্গে কলকাতায় শুরু হলো করোনার বিসিজি ক্লিনিক্যাল ট্রায়াল। শুক্রবার প্রথম দিনেই ৪০জন সুস্থ ও প্রাপ্তবয়স্ক ব্যক্তির করোনার পরীক্ষা নেগেটিভ রিপোর্ট আসার পর তাঁদের শরীরে ব্যাসিলাস কালমেট গুইরিন (বিসিজি) ভ্যাকসিন।  জানা গিয়েছে, যাঁরা ভ্যাকসিন নেবেন, তাঁদের পরিচয় গোপন রাখা হবে।  এই ট্রায়াল যাতে প্রকাশ্যে না আসে তার জন্য যথেষ্ট সাবধানতা নেওয়ার বিষয়েও নির্দেশ রয়েছে আইসিএমআর-এর।

 বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (হু) এবং  আইসিএমআর-এর বিশেষজ্ঞদের মতে, করোনা ভাইরাসকে আয়ত্বে আনতে অত্যন্ত কার্যকর ভূমিকা নিতে পারে বিসিজি পদ্ধতি। ভ্যাকসিন দেওয়ার সঙ্গে সংশ্লিষ্ট ব্যক্তিদের সঙ্গে যোগাযোগের জন্য স্মার্ট ফোনে একটি অ্যাপ-এর মাধ্যমে যুক্ত করা হচ্ছে তাঁদের। করোনায় ফ্রন্টলাইন যোদ্ধাদের উপর এই ভ্যাকসিন কতটা কার্যকর হয়, তার উপর ভিত্তি করে ভবিষ্যতে সাধারণ মানুষের উপর এটি প্রয়োগ করা হবে বলে জানা গিয়েছে।

এদিন কলকাতার পিয়ারলেস হাসপাতালে বিসিজি’র ক্লিনিক্যাল ট্রায়াল শুরু হয়। আইসিএমআর-এর শাখা সংস্থা নাইসেড-এর তালিকা অনুসারে  রোগীদের শারীরিক পরীক্ষার পর বিসিজি প্রতিষেধক দেওয়া হয়। নাইসেড-এর তরফে জানানো হয়েছে,  ডবল লাইন কন্ট্রোল ট্রায়াল’ পদ্ধতিকে অবলম্বন করে প্রথম দিনেই ৪৫জন কে প্রতিষেধক দেওয়া হয়। কলকাতার চারটি ওয়ার্ডে এই ভ্যাকশিন দেওয়া হবে।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only