বৃহস্পতিবার, ২৩ জুলাই, ২০২০

মেস-পেয়িং গেস্ট' ফেরা নি‌য়ে অনিশ্চয়তা পড়ুয়াদের

পু‌বের কলম প্র‌তি‌বেদক: লকডাউনের আগে বাড়ি যাওয়া মেস বা 'পেয়িং গেস্ট'  থেকে পড়া‌শোনা করা পড়ুয়ারা কবে ফিরতে পারবেন, তা নিয়ে অনিশ্চয়তা সৃষ্টি হয়েছে। কলকাতার মধ্যে থাকা মেস বা পেইং গেস্টগুলি এলাকার লোকজনের নজরে রয়েছে। কোভিভ আতঙ্কে সেই বাসিন্দারা এতটাই সতর্ক, সেগুলিকে কয়েকমাস বন্ধ রাখার জন্য জোরাজুরি করছেন তাঁরা। মেস মালিক থেকে শুরু করে ছাত্রছাত্রী, সবাই অসুবিধায় পড়েছেন।

কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়ের এমএসসি পড়ুয়া অরিজিৎ রিভস বলেন, সূর্য সেন স্ট্রিটে পুরসভার পাঁচ নম্বর বরো অফিসের পাশে একটি মেসে থাকি। লকডাউ‌নের আগে তো বাঁশবেড়িয়ার বাড়িতে ফিরে গিয়েছি। কিন্তু যা শুনছি, তাতে মেসে ফিরে যাওয়ার অবস্থা নেই। ওই জায়গাটা নাকি কন্টেইনমেন্ট জোন হয়ে গিয়েছে। ব্যারিকেড করা আছে। 

শ্রদ্ধানন্দ পার্কের পাশে একটি মেসে থাকেন পূর্ব মেদিনীপুরের তারক সামন্ত। তিনিও কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়ের এমএসসি পড়ুয়া। তারক বলেন, আমাদের মেসে জনা পঞ্চাশেক আবাসিক থাকেন। কিন্তু বর্তমানে রয়েছেন আট থেকে ন’জন। যাঁরা নেই, তাঁদেরও মাসে ২৫ দিনের মিল, বিদ্যুৎ এবং অন্যান্য খরচ দিতে হবে। এতে গরিব বাড়ির ছাত্রদের সমস্যায় পড়ারই কথা। 

উত্তর কলকাতার টিএমসিপির এক ছাত্রনেতা বলেন, বেশিরভাগ আবাসিকই বাড়ি ফিরে গিয়েছেন। খুব অল্প সংখ্যক যাঁরা রয়েছেন, তাঁদের উপর ভাড়ার জন্য চাপ দেওয়া হচ্ছে বলে শুনছি। আবার অনেক মেস মালিকই নাকি দু’মাসের ভাড়া মকুব করছেন। 

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only