রবিবার, ২ আগস্ট, ২০২০

বেআইনিভাবে মেহবুবাকে বন্দী করে রাখা হয়েছে, অবিলম্বে তাঁকে মুক্তি দিক কেন্দ্র – টুইটে সরব রাহুল গান্ধি

















পুবের কলম ওয়েব ডেস্ক:

প্রায় ১ বছর হতে চলল, জম্মু-কাশ্মীরে ৩৭০ ধারা বিলোপের মাধ্যমে খর্ব হয়েছে বিশেষ মর্যাদা। অথচ উপত্যকার প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী তথা পিপলস ডেমোক্র্যাটিক পার্টি (পিডিপি)-র নেত্রী মেহবুবা মুফতিকে এখনও জন নিরাপত্তা আইনে (পিএসএ) গৃহবন্দী করে রাখা হয়েছে। এ বার তা নিয়েই কেন্দ্রীয় সরকারের বিরুদ্ধে সরব হলেন কংগ্রেস সভাপতি রাহুল গান্ধি। মেহবুবা মুফতিকে অবিলম্বে মু্ক্তি দিতে হবে বলেও দাবি তুলেছেন তিনি।
জম্মু-কাশ্মীরের বিশেষ মর্যাদা খর্ব করার আগে, কেন্দ্রীয় সরকারের নির্দেশে গত বছর ৫ আগস্ট মেহবুবা মুফতি, ওমর আবদুল্লা-সহ কাশ্মীরের বহু রাজনীতিককে গৃহবন্দী করা হয়। তার পর যত সময় এগিয়েছে ওমর আবদুল্লা, সাজ্জাদ গনি লোনের মতো রাজনীতিকদের একে একে মুক্তি দেওয়া হয়েছে। কিন্তু মেহবুবাকে মুক্তি দেওয়া নিয়ে ভাবনা চিন্তা করা তো দূর, বরং সম্প্রতি তাঁর বন্দীদশার মেয়াদ আরও ৩ মাস বাড়ানো হয়েছে।
সেই ঘটনা নিয়েই রবিবার সকালে কেন্দ্রীয় সরকারকে একহাত নেন কংগ্রেস সাংসদ রাহুল গান্ধি। এদিন টুইটারে তিনি লেখেন, ‘‘সরকার বেআইনি ভাবে রাজনীতিকদের বন্দী করে রাখায় দেশের গণতন্ত্র ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। মেহবুবা মুফতিকে মুক্তি দেওয়ার এটাই উপযুক্ত সময়।’’ প্রসঙ্গত, গত শুক্রবার পিপলস কনফারেন্সের নেতা সাজ্জাদ গনি লোনকে মুক্তি দেয় জম্মু-কাশ্মীর প্রশাসন। তার পর একটি বিবৃতি জারি করে বলা হয়, জন নিরাপত্তা আইনে মেহবুবা মুফতির বন্দীদশা আরও ৩ মাসের জন্য বাড়ানো হল।
এই বিবৃতির বিরুদ্ধে ইতিমধ্যেই সরব হয়েছে উপত্যকার সমস্ত রাজনৈতিক দলগুলি। পিটিপির তরফে বলা হয়, ‘‘বিজেপির বোঝা উচিত যে এ ভাবে কাশ্মীরিদের দমিয়ে রাখা যাবে না।’’ মেহবুবা মুফতির বন্দীদশার মেয়াদ বাড়ানোর তীব্র সমালোচনা করে ন্যাশনাল কনফারেন্সও (এনসি)। দেশের আর কোথাও জন নিরাপত্তা আইনের অস্তিত্ব না থাকলেও, শুধুমাত্র কাশ্মীরে কেন এই আইনের প্রয়োগ চালিয়ে যাওয়া হচ্ছে, তা নিয়েও প্রশ্ন তোলে তারা। দলের নেতা ওমর আবদুল্লা টুইটারে লেখেন, ‘‘বেআইনি ভাবে গৃহবন্দী করে রাখা হয়েছিল সাজ্জাদ লোনকে। উনি মুক্তি পেয়েছেন শুনে ভাল লাগল। আরও অনেককেই বেআইনি ভাবে বন্দি করে রাখা হয়েছে। আশা করি, তাঁদেরও খুব শীঘ্রই মুক্তি দেবে কেন্দ্র।’’

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only