মঙ্গলবার, ১১ আগস্ট, ২০২০

খুশির খবর রাজ্যসভা সচিবালয়ের কর্মীদের ! ঠিক কিইবা হল ঘোষণা? বিস্তারিত জানুন

 

পুবের কলম ওয়েব ডেস্ক:রাজ্যসভা সচিবালয়ের কর্মীদের আবাসনের সমস্যা দূর করতে জাতীয় রাজধানী অঞ্চলে আর.কে. পুরমে আবাসন গড়ে তোলা হবে। ৪৬ কোটি টাকার এই আবাসন প্রকল্পের শিলান্যাস করেছেন উপরাষ্ট্রপতি এবং রাজ্যসভার চেয়ারম্যান শ্রী এম ভেঙ্কাইয়া নাইডু। উপরাষ্ট্রপতি ভবন থেকে অনলাইনের মাধ্যমে এই অনুষ্ঠানে কেন্দ্রীয় আবাসন, নগরোন্নয়ন ও অসামরিক বিমান চলাচল মন্ত্রীর শ্রী হরদীপ সিং পুরিও উপস্থিত ছিলেন। 

এই প্রকল্পের কাজ শুরু করতে যথেষ্ট দেরি হওয়ায় উপরাষ্ট্রপতি উদ্বেগ প্রকাশ করেন। ২০০৩ সালে সচিবালয়ের কর্মীদের জন্য এই জমি বরাদ্দ করা হয়। অথচ ১৭ বছর ধরে কাজ শুরু করা যায়নি। এরফলে আর্থ-সামাজিক এবং আইনগত প্রশাসনিক দিক থেকে  বিভিন্ন সমস্যা দেখা দিয়েছে। চেয়ারম্যান জানান গত ২ বছর ধরে কেন্দ্রীয় আবাসন মন্ত্রী সঙ্গে এই বিষয়টি নিয়ে তিনি  বেশ কয়েকটি বৈঠক করেছেন। ওই বৈঠকগুলিতে দিল্লী সরকার, দিল্লী উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ, ডিইউএসআইবি, ভূমি ও উন্নয়ন মন্ত্রকের আধিকারিকরা উপস্থিত থাকতেন। জমি  সংক্রান্ত সমস্যার সমাধানের জন্য শ্রী নাইডু দিল্লীর উপ-রাজ্যপাল শ্রী অনীল বাইজল এবং দিল্লীর মুখ্যমন্ত্রী শ্রী অরবিন্দ কেজরিওয়ালের সঙ্গেও বৈঠক করেছেন। উপরাষ্ট্রপতি জানিয়েছেন সঠিক সময়ে কাজ শুরু না হওয়ায় সচিবালয়ের কর্মীদের বাড়ি ভাড়া বাবদ প্রচুর অর্থ দিতে হয়েছে। এ ছাড়াও রাজ্যসভা টিভির জন্য প্রতি বছর ৩০ কোটি টাকা ভাড়া দিতে হত। এই চ্যানেলটির দপ্তরও এরপর এখানে নিয়ে আসা হবে, ফলে ওই চ্যানেল আর কে পুরম থেকে  কাজ করতে পারবে। 

কেন্দ্রীয় আবাসন মন্ত্রী শ্রী হরদীপ সিং পুরি রাজ্যসভার চেয়ারম্যানকে আশ্বস্ত করে জানান ৩ বছরের মধ্যে এই প্রকল্পের কাজ শেষ হবে। এরজন্য ১ কোটি ৭ লক্ষ টাকা বরাদ্দ করা হয়েছে। শ্রী পুরি জানিয়েছেন রাজ্যসভার চেয়ারম্যানের গত ২ বছর ধরে সক্রিয় উদ্যোগের কারণেই এই প্রকল্পের কাজ শুরু হতে চলেছে।

রাজ্যসভার মহাসচিব শ্রী দেশ দীপক ভার্মা, সচিব ডঃ পি পি কে রামাচারিলু সহ আবাসন মন্ত্রক ও রাজ্যসভার সচিবালয়ের পদস্থ আধিকারিকরা এই অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন।

 

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only