বুধবার, ১৯ আগস্ট, ২০২০

মনোনয়ন পেয়ে ইরানের সঙ্গে চুক্তিতে নিয়ে কি বললেন বিডেন? বিস্তারিত পড়ুন


পুবের কলম ওয়েব ডেস্ক: আসন্ন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে বিরোধী দল ডেমোক্র্যাট পার্টির তরফে চূড়ান্ত মনোনয়ন পেলেন জো বিডেন। আগামী ৩ নভেম্বর নির্বাচনে প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের একমাত্র প্রতিপক্ষ হিসেবে লড়বেন এই বর্ষীয়ান রাজনীতিবিদ। উইসকনসিন স্টেট সিটিতে ডেমোক্র্যাট পার্টির ৪ দিনের জাতীয় কনভেনশনের দ্বিতীয় দিন মঙ্গলবার প্রার্থী হিসেবে সিলমোহর পেলেন বিডেন। আমেরিকার ৫০ প্রদেশ ও ৭ অঞ্চল থেকেই সমর্থন পেয়েছেন তিনি।

এদিন তাঁর দলের প্রাক্তন প্রেসিডেন্ট বিল ক্লিন্টন, জিমি কার্টার ছাড়াও উপস্থিত ছিলেন সাবেক বিদেশমন্ত্রী কলিন পাওয়েল,ওবামার স্ত্রী মিশেল প্রমুখ বিডেনকে শুভেচ্ছা ও ধন্যবাদ জানান। একইসঙ্গে তাঁরা প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের তীব্র সমালোচনাও করেন। বৃহস্পতিবার ওবামা সমাপ্তি ভাষণ দেবেন।

এদিন মনোনয়ন পেয়ে বিডেন বলেন,আমরা জয়ী হলে ইরানের সঙ্গে ঐতিহাসিক পরমাণু চুক্তি আরও শক্তিশালী হবে। ইরানও প্রকৃত সদিচ্ছা দেখালে পুনরায় চুক্তিতে ফেরার বিষয়টি আমেরিকা গুরুত্ব দিয়ে বিবেচনা করবে। উল্লেখ্য, ২০১৫ সালের ১৪ জুলাই অস্ট্রিয়ার রাজধানী ভিয়েনায় ইরানের সঙ্গে চুক্তিতে সই করেছিল রাষ্ট্রসংঘের নিরাপত্তা পরিষদের ৫ স্থায়ী সদস্য দেশ আমেরিকা, রাশিয়া, চিন,ব্রিটেন ও ফ্রান্স। এ ছাড়াও মধ্যস্থতাকারী হিসেবে ছিল রাষ্ট্রসংঘের, আইএইএ, ইউরোপীয় ইউনিয়ন এবং জার্মানি। 

কিন্তু ট্রাম্প ক্ষমতায় আসার আগে থেকেই চুক্তির তীব্র বিরোধিতা করতে থাকেন। মসনদে বসে নানান চেষ্টা করেও কোনও দেশকে পটাতে না পেরে শেষমেষ ৮ মে ২০১৮ সেই ঐতিহাসিক চুক্তি ছেড়ে বেরিয়ে যান ট্রাম্প। ইরানের বিরুদ্ধে তাঁর তোলা অভিযোগ খারিজ করে দেয় সবপক্ষই। তবু তাঁর ইচ্ছা এতবড় চুক্তির সাফল্য তিনি নিজে পকেটস্থ করবেন এবং সেই কৃতিত্বের জেরে নোবেল শান্তি পুরস্কার পাবেন। 

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only