বৃহস্পতিবার, ১৩ আগস্ট, ২০২০

চিকিৎসা গাফিলতিতে শিশুমৃত্যু অভিযাগ ,বকেয়া টাকা না মেটানোয় দেহ আটকে রাখল নার্সিংহোম


পুবের কলম ওয়েব ডেস্ক: চিকিৎসার গাফিলতিতে শিশু মৃত্যুর অভিযোগ এবার বাগুইআটির নামী এক নার্সিহোমের বিরুদ্ধে। শিশুর পরিবারের অভিযোগ, বকেয়া লক্ষাধিক টাকার বিল না মেটালে দেহ দিতে আপত্তি হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের। দক্ষিণ কলকাতার নোনাডাঙার এলাকার বাসিন্দা কৌশিক চক্রবর্তীর স্ত্রী নিশা চক্রবর্তী গত জুন মাসের ২৪ তারিখে স্থানীয় একটি নার্সিংহোমে পুত্র সন্তান জন্মদেন। জন্মের পর শিশুটির হৃদযন্ত্র সমস্যা ধরা পড়ে।

তার চিকিৎসার করতে বাগুইআটি তেঘরিয়ায় অঞ্চলের নাসিংহোমে ভর্তি করা হয় শিশুটিকে। চিকিৎসার খরচ বাবদ প্রথমে শিশুর পরিবার ৩ লক্ষের বেশি টাকা হাসাপাতলে জমা করেন। কিছুদিন পর পর্যাপ্ত চিকিৎসা হচ্ছে না এই অভিযোগ তুলতেই শিশুটির পরিবারকে ৬ লক্ষ ৪৪ হাজার টাকার বিল ধরান হাসপাতাল। অভিযোগ টাকার জন্য খুদের পরিবারকে চাপও দেওয়া হয়।

এরপর গত বুধবার সকালে শিশুটির মৃত্যু হয়েছে বলে জানানো হয়। মৃত শিশুর বাবা কৌশিকবাবুর অভিযোগ, ‘টাকা দিয়ে সময় লাগছিল বলে চিকিৎসা ঠিক মতো হয়নি। গাফিলতিতেই বাচ্চাটি মারা গেছে। এই অমানবিক ঘটনার বিচারে সরকারের দৃষ্ট আকর্ষণ করব’। যদিও হাসপাতালে পক্ষে জানান হয়েছে, ৪৯ দিন কিচিৎসাধিন ছিল শিশুটি। ঠিকমতো চিকিৎসা হয়েছে। দেহ আটকে রাখার অভিযোগ উড়িয়ে হাসপাতাল জানিয়েছে, মোটা বকেয়া টাকা মেটায়নি শিশু পরিবার। তাব মানবিক ভাবে তা মুকুব করা হয়েছে। 

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only