বৃহস্পতিবার, ২৭ আগস্ট, ২০২০

নিউজিল্যান্ডের মসজিদে হামলাকারীর আমৃত্যু কারাদণ্ড সাজা, বিস্তারিত পড়ুন

 

কোর্টেে সাজা শোনার সময় হামলাকারী 


পুবের কলম ওয়েব ডেস্কঃ  নিউজিল্যান্ডের ক্রাইস্টচার্চের দুই মসজিদে সন্ত্রাসী হামলার দায়ে শ্বেতাঙ্গ  ব্রেন্টন টারান্টকে প্যারোলবিহীন আমৃত্যু কারাদণ্ড শোনাল আদালত। বৃহস্পতিবার নিউজিল্যান্ড  হাইকোর্ট এই রায় ঘোষণা করে। নিউজিল্যান্ডের ইতিহাসে এই প্রথম এমন সাজা কাউকে দেওয়া হল।

২০১৯ সালের মার্চে ক্রাইস্টচার্চের দুই মসজিদে হামলা চালায় উগ্রপন্থী ব্রেন্টন টারান্ট। তাতে ৫৮ জন মুসল্লি নিহত হয়। তিন দিন ধরে চূড়ান্ত শুনানির পর বৃহস্পতিবার রায় ঘোষণা করেন আদালত।

রায়ের পর উচ্ছ্বসিত জনতা 

তিন দিন ধরে বহু প্রত্যক্ষদর্শী এবং নিহতদের পরিবারের জবানবন্দি শুনেছেন আদালত। অনেকেই আবেদন জানিয়েছিলেন, নৃশংস এই খুনিকে যেন কঠোরতম শাস্তি দেওয়া হয়। মৃত্যুদণ্ডের আবেদনও এসেছিল। তবে নিউজিল্যান্ডে মৃত্যুদণ্ডের প্রচলন নেই। তবে বর্বরোচিত এই হত্যাযজ্ঞের কঠোরতম সাজা ঘোষণা হবে বলে আগেই জানিয়েছিল আদালত।

আইনজীবী বার্নাবি হাওয়েজ আদালতকে বলেছেন, 'ওই হামলার জন্য বন্দুকধারী বহু বছর ধরে পরিকল্পনা করছিল। তার উদ্দেশ্যে ছিল যত বেশি সম্ভব মানুষকে হতাহত করা। ব্রেন্টন পুলিশকে জানিয়েছিল দুইটি নয়, তিনটি মসজিদে হামলা চালানোর ইচ্ছে ছিল তার। শুধু তাই নয়, প্রতিটি মসজিদ পুড়িয়ে দেওয়ার পরিকল্পনা ছিল তার। নিজের কাজের জন্য কখনও অনুশোচনা প্রকাশ করেনি ব্রেন্টন। 

রায় ঘোষণার সময় বিচারক বলেন, ১৭, ২৫, ৩৫ বছরের জন্য সাজা দেওয়া যেত এই সন্ত্রাসীকে। কিন্তু আদালত স্থির করেছে, তাকে সারা জীবনের জন্য জেলে পাঠাবে। কখনও প্যারোলে বাইরে বেরুতে পারবে না সে।


একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only