শনিবার, ২৬ সেপ্টেম্বর, ২০২০

সম্প্রীতির বাংলায় বিজেপি’র কোনও ঠাই নেই : গোপাল শেঠ



এম এ হাকিম, বনগাঁ :  ২০২১ সালের বিধানসভা নির্বাচনকে সামনে রেখে এখন থেকেই মাঠে নেমে পড়েছেন তৃণমূলের উত্তর ২৪ পরগণা জেলার কো-অর্ডিনেটর ও জেলা পরিষদের মেন্টর গোপাল শেঠ। বনগাঁ উত্তর, বনগাঁ দক্ষিণ, বাগদা, গাইঘাটা এবং স্বরূপনগর বিধানসভাকে বেছে নিয়েছেন গোপাল বাবু। কার্যত চষে বেড়াচ্ছেন বিভিন্ন এলাকা। 


শনিবার ‘পুবের কলম’কে দেওয়া সাক্ষাতকারে বলেন, ‘নির্বাচনে যেকোনো মূল্যে সাম্প্রদায়িক বিজেপি ও অন্যদেরকে পরাজিত করা লক্ষ্যে বিভিন্ন এলাকায় কর্মীদের প্রশিক্ষণ দেওয়া হচ্ছে। আঞ্চলিক দায়িত্বশীলদের নিয়ে মিটিং করে রীতিমত প্রশিক্ষণ দেওয়া হচ্ছে।’   

 


গোপাল শেঠ বলেন, ‘আজই বনগাঁর গোবরাপুরে ঘাটবাঁওড়, ধর্মপুকুরিয়া, ট্যাংরাকলোনি, গাড়াপোঁতা ও সুন্দরপুর পঞ্চায়েতের দায়িত্বশীলদের নিয়ে মিটিং করা হয়েছে। আঞ্চলিক নেতা-কর্মীদের বুঝিয়ে দেওয়া হয়েছে কীভাবে বিজেপি ও অন্য বিরোধীদলকে রুখে দিয়ে জয়ের পথকে সুগম করতে হবে। বিধানসভা নির্বাচনে মহকুমা থেকে ১ লাখের বেশি ভোটে লিড দিতে হবে বলে সবাইকে সেইভাবে ঝাঁপিয়ে পড়তে বলা হয়েছে। মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় রাজ্যে যে উন্নয়নের জোয়ার এনেছেন সেই উন্নয়নের সুফলের কথা ঘরে পৌঁছে নেওয়ার দায়িত্ব নিতে হবে প্রধান থেকে শুরু করে অন্যদেরকে।’ 


গোপাল বাবু বলেন, ‘বিজেপি সর্বনাশা কৃষি বিল নিয়ে এসে বড় বড় শিল্পপতিদের কাছে কৃষকদের গুলাম বানানোর চেষ্টা করছে। ব্রিটিশ আমলের কোম্পানি রাজ প্রচলনের চেষ্টা করছে। কিন্তু বনগাঁ মহকুমার মানুষদের মধ্যে নীলকর সাহেবদের বিরুদ্ধে ঐতিহাসিক লড়াইয়ের ঐতিহ্য রয়েছে। সেজন্য কোনোভাবেই কৃষকদের স্বার্থক্ষুণ্ণকারী কৃষি বিল মানুষ কোনোভাবেই মেনে নেবে না। মহকুমার বিভিন্ন প্রান্তে এরইমধ্যে সর্বনাশা কৃষি বিলের প্রতিবাদে সর্বস্তরের মানুষজন সোচ্চার হয়েছেন। কার্যত ক্ষোভে ফুঁসছেন কৃষক-সহ সাধারণ মানুষজন। একইসঙ্গে দেশবাসীকে দেওয়া ‘আচ্ছে দিন’-এর প্রতিশ্রুতি পূরণে কেন্দ্রীয় বিজেপি সরকারের চরম ব্যর্থতা ও মানুষের চরম দুর্ভোগের কথা তুলে ধরা হচ্ছে।’ 

 

‘বাংলার মাটি সম্প্রীতির মাটি। এই মাটিতে সাম্প্রদায়িক, বিভেদকামী  বিজেপি’র কোনও ঠাই নেই বলেও জেলা তৃণমূলের কো-অর্ডিনেটর ও জেলা পরিষদের মেন্টর গোপাল শেঠ মন্তব্য করেন।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only