মঙ্গলবার, ১৫ সেপ্টেম্বর, ২০২০

করোনা রোগীদের নয়া খাদ্যতালিকা প্রকাশ স্বাস্থ্য দফতরের



 পুবের কলম ওয়েব ডেস্ক :করোনা আবহে শহরের বিভিন্ন হাসপাতালের বিরুদ্ধে উঠেছে অমানবিকতার অভিযোগ।  কখনও রোগী হয়রানি আবার কখনও চিকি‍ৎসায় গাফিলতির অভিযোগ আবার কখনও রোগীকে নিম্নমানের খাবার দেওয়া। নানান অভিযোগ ইতিমধ্যে কাঠ গড়ায় উঠেছে কলকাতার বহু হাসপাতাল। তবে করোনা রোগীদের স্বাস্থ্য নিয়ে সচেতন স্বাস্থ্য দফতর। আর তাই মঙ্গলবার করোনা রোগীদের জন্য খাবারের নির্ধারিত মান বেঁধে নির্দেশিকা জারি স্বাস্থ্য দফতরের।

স্বাস্থ্য দফতরের তরফের নির্দেশিকা জারি করে বলা হয়েছে কোভিড হাসপাতালে ভর্তি থাকা রোগীদের দিনপ্রতি মাথাপিছু খাবারের মূল্য এবার থেকে হবে ১৭৫ টাকা করে। রোগীদের প্রতিদিন সকালে দিতে হবে চা সঙ্গে দুটি বিস্কুট। এরপর ব্রেকফাস্টে দিতে হবে চারটি রুটি, একটি ডিমসেদ্ধ, একটি কলা এবং ২৫০ এমএল গরম দুধ। লাঞ্চে অর্থা‍ৎ দুপুরের খাবারে দিতে হবে ভাল চালের ভাত ১৫০ গ্রাম, ৫০ গ্রাম ডাল, ৮০ বা ৯০ গ্রাম ওজনের মাংসের পিস, ১০০ গ্রাম মরসুমি আনাজের তরকারি, ১০০ গ্রাম দই। যদি কেউ মাছ-মাংস না খায় সে ক্ষেত্রে পনির, মাশরুম অথবা সোয়াবিন দিতে হবে ৮০ গ্রাম। আর সন্ধেয় চা এবং দুটি বিস্কুট দিতে হবে। রাতে দিতে হবে ১০০ গ্রামের ভাত বা সমপরিমাণ রুটি, ৫০ গ্রাম ডাল, ১০০ গ্রাম ওজনের মাছ বা মাংসের পিস, ৭৫ গ্রাম তরকারি। এক্ষেত্রেও যদি কেউ মাছ বা মাংস না খায় সে ক্ষেত্রে পনির বা সোয়াবিন বা রাজমা দিতে হবে ৮০ গ্রাম।

উল্লেখ্য, এর আগে গত ১৮ জুন রাজ্য স্বাস্থ্য দফতরের তরফে রোগীদের খাবারের জন্য দিনে রোগীপিছু বরাদ্দ করে ছিল ১৫০ টাকা। তখন জানানো হয়েছিল লুস খাবার নয় রোগীদের দেওয়া হবে প্যাকেটজাত খাবার। প্রতিদিন সকাল-বিকেল দুবেলাই মেনুতে থাকবে মাছ বা মাংস। খাবারের তালিকায় ব্রেকফাস্ট থাকবে  ৪টি রুটি, একটি করে ডিম, কলা, দুধ। লাঞ্চে দেওয়া হবে ভাত, ডাল, সব্জি, মাছ বা মাংস এবং দই। ডিনারে থাকবে  ভাত, রুটি, ডাল, সব্জি, মাছ।

করোনা রোগীদের নয়া খাদ্যতালিকা প্রকাশ স্বাস্থ্য দফতরের

করোনা আবহে শহরের বিভিন্ন হাসপাতালের বিরুদ্ধে উঠেছে অমানবিকতার অভিযোগ।  কখনও রোগী হয়রানি আবার কখনও চিকি‍ৎসায় গাফিলতির অভিযোগ আবার কখনও রোগীকে নিম্নমানের খাবার দেওয়া। নানান অভিযোগ ইতিমধ্যে কাঠ গড়ায় উঠেছে কলকাতার বহু হাসপাতাল। তবে করোনা রোগীদের স্বাস্থ্য নিয়ে সচেতন স্বাস্থ্য দফতর। আর তাই মঙ্গলবার করোনা রোগীদের জন্য খাবারের নির্ধারিত মান বেঁধে নির্দেশিকা জারি স্বাস্থ্য দফতরের।

স্বাস্থ্য দফতরের তরফের নির্দেশিকা জারি করে বলা হয়েছে কোভিড হাসপাতালে ভর্তি থাকা রোগীদের দিনপ্রতি মাথাপিছু খাবারের মূল্য এবার থেকে হবে ১৭৫ টাকা করে। রোগীদের প্রতিদিন সকালে দিতে হবে চা সঙ্গে দুটি বিস্কুট। এরপর ব্রেকফাস্টে দিতে হবে চারটি রুটি, একটি ডিমসেদ্ধ, একটি কলা এবং ২৫০ এমএল গরম দুধ। লাঞ্চে অর্থা‍ৎ দুপুরের খাবারে দিতে হবে ভাল চালের ভাত ১৫০ গ্রাম, ৫০ গ্রাম ডাল, ৮০ বা ৯০ গ্রাম ওজনের মাংসের পিস, ১০০ গ্রাম মরসুমি আনাজের তরকারি, ১০০ গ্রাম দই। যদি কেউ মাছ-মাংস না খায় সে ক্ষেত্রে পনির, মাশরুম অথবা সোয়াবিন দিতে হবে ৮০ গ্রাম। আর সন্ধেয় চা এবং দুটি বিস্কুট দিতে হবে। রাতে দিতে হবে ১০০ গ্রামের ভাত বা সমপরিমাণ রুটি, ৫০ গ্রাম ডাল, ১০০ গ্রাম ওজনের মাছ বা মাংসের পিস, ৭৫ গ্রাম তরকারি। এক্ষেত্রেও যদি কেউ মাছ বা মাংস না খায় সে ক্ষেত্রে পনির বা সোয়াবিন বা রাজমা দিতে হবে ৮০ গ্রাম।

উল্লেখ্য, এর আগে গত ১৮ জুন রাজ্য স্বাস্থ্য দফতরের তরফে রোগীদের খাবারের জন্য দিনে রোগীপিছু বরাদ্দ করে ছিল ১৫০ টাকা। তখন জানানো হয়েছিল লুস খাবার নয় রোগীদের দেওয়া হবে প্যাকেটজাত খাবার। প্রতিদিন সকাল-বিকেল দুবেলাই মেনুতে থাকবে মাছ বা মাংস। খাবারের তালিকায় ব্রেকফাস্ট থাকবে  ৪টি রুটি, একটি করে ডিম, কলা, দুধ। লাঞ্চে দেওয়া হবে ভাত, ডাল, সব্জি, মাছ বা মাংস এবং দই। ডিনারে থাকবে  ভাত, রুটি, ডাল, সব্জি, মাছ।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only