শুক্রবার, ২৫ সেপ্টেম্বর, ২০২০

কেরলে পেপসি কারখানা বন্ধ, কাজ হারালেন কয়েকশো কর্মী



তিরুবনন্তপুরম, ২৫ সেপ্টেম্বরঃ করোনা অতিমারির জেরে দেশজুড়ে চলছে অর্থনৈতিক মন্দা। অসংগঠিত ক্ষেত্রের বহু শ্রমিক কাজ হারিয়েছেন। বিজেপি সরকারও কোনও দিশা দেখাতে পারেনি এই দুর্দশায়। একের পর এক পরিষেবা বেসরকারি হাতে তুলে দেওয়া হয়েছে। এবার সেই অর্থনৈতিক দুরবস্থার পথ ধরেই ২০ বছর ধরে চলা কেরলের পেপসি ইউনিট বন্ধ করে দেওয়া হল। বকেয়া বেতনের জন্য আন্দোলন শুরু করেছেন কয়েকশো কর্মী। 


কোভিডের তাণ্ডবে কমে গিয়েছে ঠান্ডা পানীয়ের বাজার। কিছুদিন আগেই কোকাকোলা কোম্পানি ১২৮ বছরের ইতিহাসে প্রথমবার কর্মী ছাঁটাইয়ের পথে হেঁটেছে। ভারত সহ বিভিন্ন দেশে তাদের ইউনিট কমিয়ে আনার খবর পাওয়া যাচ্ছিল। এবার সেই রাস্তাতে হাঁটল কোকাকোলার প্রধান প্রতিদ্বন্দ্বী পেপসি। কেরলের পালাক্কড়ের কাঞ্জিকোড় ইস্টের বরুণ বেভারেজ লিমিটেডে তৈরি হত কার্বোনেটেড ঠান্ডা পানীয়। করোনার প্রভাবে ঠান্ডা পানীয়ের চাহিদা তলানিতে ঠেকায় আচমকা পেপসির এই ইউনিটটি বন্ধ করে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেয় কর্তৃপক্ষ। এর ফলে বিপাকে প্রায় ৭০০ কর্মী।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only