বুধবার, ৯ সেপ্টেম্বর, ২০২০

এবার কাশী-মথুরার ‘মুক্তি’ চায় আখাড়া পরিষদ

 


ইলাহাবাদ, সেপ্টেম্বর: এতোদিন ছিল অযোধ্যা এবার অযোধ্যা মিলতেই অখিল ভারতীয় আখাড়া পরিষদের টার্গেট কাশী-মথুরা যদিও কাশী-মথুরা পাওয়ার এইবায়নাবহুদিনের বহু আগে থেকেই উগ্র হিন্দুত্ববাদীদের ধ্বনি ছিল– ‘অযোধ্যা তো ঝাঁকি হ্যায়কাশী-মথুরা বাকি হ্যায়' তারা যে সত্যিই এব্যাপারে এতো মরিয়া ছিলতা এখন পরিষ্কার
¬ বার কাশী-মথুরাকেমুক্তকরতে চায় গেরুয়া শিবির ভারতের সাধু-সন্তদের সর্বোচ্চ সংগঠন অখিল ভারতীয় আখাড়া পরিষদ (বিপি) সোমবার ঘোষণা করেছেএবার কাশী-মথুরায় সনাতন ধর্মের ধ্বজা প্রতিষ্ঠা করা হবে যা নিয়ে ব্যাপক শোরগোল পড়ে গিয়েছে আন্দোলন শুরু করার জন্য সাধু-সন্তরা সোমবার ইলাহাবাদে (প্রয়াগরাজ) বৈঠকে বসে বলে জানিয়েছে পরিষদ সেখানে তারা সিদ্ধান্ত নিয়েছে কাশী-মথুরাকেমুক্তকরতে প্রথমে আলোচনায় বসবে সেখানে মীমাংসা না হলে আইনের পথে হাঁটবে পরেমুক্তকরতে আন্দোলন করবে ব্যাপারে তারা বিশ্ব হিন্দু পরিষদ আরসএসের সহযোগিতা চেয়েছে
সম্প্রতিমথুরাকেমুক্তকরতে কৃষ্ণ জন্মভূমি ট্রাস্ট গঠন করেছে দেশের ১৪টি রাজ্যের ৮০ জন শীর্ষ সাধু আখাড়া পরিষদের সভাপতি মহন্ত নরেন্দ্র গিরি জানিয়েছেনবহু লড়াই দীর্ঘদিনের সংগ্রামের ফসল হল রাম মন্দিরের ভূমিপুজো শিলান্যাস সমস্ত হিন্দু সমাজের জন্য এক গর্বের মুহূর্ত অযোধ্যা এতদিনরাহুমুক্তহল এবার আমরা কাশী-মথুরাতে সনাতন ধর্মের ধ্বজা প্রতিষ্ঠা করতে চাই দুই পবিত্র ধর্মীয়স্থলকে মুক্ত করতে হবে কিছুদিন আগেই বজরং দলের নেতা বিনয় কাটিহার মন্তব্য করেছিলেনবিজেপি সমস্ত হিন্দু সংগঠনগুলি এবার রাম মন্দিরের পর কাশী-মথুরা নিয়ে আন্দোলন শুরু করবে
উল্লেখ্যহিন্দুত্ববাদী সংগঠনগুলির দাবি অনুযায়ী১৬৬৯ সালে কাশীর একটি হিন্দু মন্দির ধ্বংস করে মুঘল সম্রাট আওরঙ্গজেব জ্ঞানবাপী মসজিদ বানিয়েছিলেন ওই মন্দিরের সঙ্গে কাশী বিশ্বনাথ মন্দিরের যোগ ছিল বলে জানা যায় একইসঙ্গে মথুরাতে শাহী ঈদগাহে আগে মন্দির ছিল বলে দাবি কৃষ্ণ জন্মভূমি ট্রাস্টের ঈদগাহ সংলগ্ন সাড়ে চার একর জমিতে সনাতন ধর্মের স্থাপত্য ধর্মীয় সাংস্টৃñতিক অনুষ্ঠানের মঞ্চ বানাতে চায় ট্রাস্ট

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only