বুধবার, ১৬ সেপ্টেম্বর, ২০২০

জীবনবিমার বেসরকারীকরণ রোখার আন্দোলনে দেশের মানুষকে পাশে চাইছেন কর্মীরা

 



পুবের কলম প্রতিবেদক­:  দেশের উন্নয়নে গুরুত্বপূর্ণ অবদান রয়েছে জীবনবীমা নিগমের (এলআইসি)।  এবছরের বাজেটে কেন্দ্রের অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারামন রাষ্ট্রায়ত্ত জীবন বিমার সিংহভাগ শেয়ার বিক্রির কথা আগেই জানিয়েছেন। এবার কেন্দ্রের সেই সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে একজোট হয়ে রুখে দাঁড়াল সংস্থার কর্মী সংগঠনগুলি। বহু বছরের পুরনো এই সংস্থাকে বেসরকারীকরণের হাত থেকে বাঁচাতে দেশব্যাপী প্রচারাভিযান শুরু করে দিয়েছেন তাঁরা। জীবনবিমার বেসরকারীকরণ রোখার আন্দোলনে তাঁরা দেশের মানুষকে পাশে চাইছেন। আর সেই আন্দোলনে সামিল করতে ইতিমধ্যেই সাধারণ মানুষ থেকে শুরু করে সমাজের বিশিষ্ট ব্যক্তি এমনকি বিভিন্ন দলের সাংসদদের কাছে পৌঁছানোর কাজ শুরু করে দিয়েছে সংগঠনগুলি। 


জীবন বিমা কর্মীদের সংগঠন কলকাতা ডিভিশন ভারতীয় জীবনবিমা কর্মচারী সমিতির সাধারণ সম্পাদক অমিতেষ সরকার বলেন– বর্তমানে এই সংস্থার মোট সম্পত্তি প্রায় ৩২ ল ক্ষ কোটি টাকারও বেশি। প্রতিটি পঞ্চবার্ষিকি পরিকল্পনা বাস্তবায়নের জন্য ভারতীয় জীবন বিমা থেকে ল ক্ষ ল ক্ষ কোটি টাকা বিনিয়োগ করে কেন্দ্র সরকার। সাধারণ মানুষ এলআইসিতে যে টাকা সংঞ্চয় করেন সেই টাকাই দেশ গঠনের জন্য বিনিয়োগ করা হয়। এই সংস্থা প্রতি বছর দেশের অর্থনীতিতে ৩.৫-৪.৫ লক্ষ কোটি অর্থ বিনিয়োগ করে। যা সড়ক ও বাঁধ নির্মান বিদ্যুৎ উৎপাদন আবাসন প্রভৃতি তৈরিতে ব্যবহার করা হয়। 

পাশাপাশি তিনি আরও বলেন সারা দেশে মোট ৪২ কোটি গ্রাহক রয়েছে রাষ্ট্রায়ত্ত জীবন বিমার। যা দেশের বীমা বাজারে ৭৬ শতাংশ জায়গা দখল করে রেখেছে। এই সংস্থার সঙ্গে প্রায় ১২ ল ক্ষ এজেন্ট যুক্ত রয়েছেন। ফলে এই সংস্থার বিলগ্নিকরণ করা হলে দেশের অর্থনৈতিক উন্নয়ন মুখ থুবড়ে পড়বে। উল্লেখ্য জীবন বিমাকে বিলগ্নীকরণ করার লে ক্ষ পুরনো আইনকে সংশোধন করতে চাইছে কেন্দ্র। এরজন্য সংসদে কোনও বিল  সংসদে পেশ করা হলে জীবনবিমার কর্মীরা দেশজুড়ে একদিনের ধর্মঘট পালন করবে বলে সংগঠনের তরফে জানানো হয়েছে।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only