বৃহস্পতিবার, ৩ সেপ্টেম্বর, ২০২০

পিএম কেয়ার্সে মাত্র ৫ দিনে ৩ হাজার কোটি টাকা ? জল্পনা তুঙ্গে হওয়ায় খোঁচা দিলেন এক কংগ্রেস নেতা? বিস্তারিত পড়ুন



 পুবের কলম প্রতিবেদকঃ মাত্র পাঁচদিনে তিন হাজার কোটিরও বেশি অনুদান পেয়েছে পিএম কেয়ার্স তহবিল। সম্প্রতি এক অডিট স্টেটমেন্ট প্রকাশ করেছে কেন্দ্র। তাতেই উঠে এসেছে এই তথ্য। তবে কারা কারা অনুদান দিয়েছেন সে সম্পর্কে বিস্তারিত তথ্য দেওয়া হয়নি। যা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন দেশের প্রাক্তন অর্থমন্ত্রী তথা বর্ষীয়ান কংগ্রেস নেতা পি চিদম্বরম। অডিট রিপোর্টে বলা হয়েছে যে ২৭ মার্চ থেকে ৩১ মার্চ পর্যন্ত প্রধানমন্ত্রীর এই কোভিড তহবিলে জমা পড়েছে ৩ হাজার ৭৬ কোটি টাকা। এর মধ্যে দেশের বিভিন্ন সংস্থা যে নাগরিকরাই দিয়েছেন ৩ হাজার ৭৫ কোটির কিছু বেশি অর্থ। আর ৪০ লক্ষ টাকা এসেছে বিদেশ থেকে। কিন্তু কোনও সংস্থা বা কেন ব্যক্তি কত টাকা অনুদান দিয়েছে তা অডিট রিপোর্টে প্রকাশ করা হয়নি। আর এ নিয়েই প্রশ্ন তুলেছেন কংগ্রেস নেতা। করোনা সংকট সামাল দিতে চলতি বছরের ২৭ মার্চ ‘পিএম কেয়ার্স’ তহবিলটি গঠন করা হয়। তার পর ৩১ মার্চ পর্যন্ত তাতে কত টাকা জমা পড়ে ‘পিএম কেয়ার্স’ ওয়েবসাইটে সম্প্রতি তার হিসাব প্রকাশ করেছে প্রধানমন্ত্রীর দফতর। তাতে দেখা গিয়েছে ২ লক্ষ ২৫ হাজার টাকা নিয়ে তহবিলটি খোলা হয়। পাঁচ দিনের মধ্যে দেশ-বিদেশ থেকে ৩ হাজার ৭৫ কোটি ৮৫ লক্ষ ৩২ হাজার ৪৫ টাকা জমা পড়ে। এর মধ্যে বিদেশি অনুদান মাত্র ৩৯ লক্ষ ৬৭ হাজার ৭৪৮ টাকা। বাকি পুরোটাই দেশের মানুষের অনুদান। টু্ইটারে পি চিদাম্বরম লিখেছেন যে ‘অডিট রিপোর্টে সম্পূর্ণ তথ্য প্রকাশ করা হয়নি। দেশ-বিদেশ থেকে কারা কত টাকা অনুদান দিয়েছে তা এখানে প্রকাশ করা হয়নি।’ এ প্রসঙ্গে তিনি আরও বলেন যে ‘প্রতিটি স্বেচ্ছাসেবী সংস্থা বা ট্রাস্ট অনুদান দেওয়া ব্যক্তিদের নাম ও অনুদানের পরিমাণ প্রকাশ করে। প্রধানমন্ত্রীর তহবিল কেন ব্যতিক্রম হবে? অনুদানকারীদের নাম প্রকাশ করতে কেন ভয় পাচ্ছেন ট্রাস্টের সঙ্গে যুক্ত ব্যক্তিরা?’ প্রসঙ্গত,কিছুদিন আগেই পিএম কেয়ার্স তহবিলে চিনা অনুদান জমা হয়েছে বলে অভিযোগ করেছিলেন প্রাক্তন অর্থমন্ত্রী।অডিট রিপোর্টে অনুদানকারীদের নাম না থাকায় সেই যোগ নিয়ে আরও একবার খোঁচা দিলেন তিনি। প্রসঙ্গত উল্লেখ্যযে জাতীয় বিপর্যয় মোকাবিলা তহবিল থাকা সত্ত্বেও করোনা আবহে এই ফান্ড গড়ে তোলার যৌক্তিকতা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছিল বিরোধীরা। এমনকী এই ফান্ডের স্বচ্ছতা নিয়েও প্রশ্ন উঠছিল।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only