শুক্রবার, ১১ সেপ্টেম্বর, ২০২০

বেরোজগারি বাড়ছে, সোশ্যাল মিডিয়ায় সোচ্চার রাহুলরা

 


পুবের কলম প্রতিবেদকঃ নানা ইস্যুতে কেন্দ্রের শাসক দল বিজেপির বিরুদ্ধে সরব হচ্ছে কংগ্রেস। দলের সভাপতি কে হবেন তা নিয়ে দলের অন্দরে বিতর্ক থাকলেও রাহুল-প্রিয়াঙ্কা বিজেপিকে স্বস্তিতে থাকতে দিচ্ছে না। লকডাউন,বেরোজগারি,জিএসটি,নোটবন্দি ইত্যাদি বিভিন্ন ইস্যুতে রাহুল-প্রিয়াঙ্কা মোদি সরকারের বিরুদ্ধে তোপ দাগছেন ক্রমাগত। বৃহস্পতিবার কংগ্রেস মোদি সরকারের উপর আক্রমণ করে একটি অনলাইন ক্যাম্পেনের সূচনা করেছে। দেশে করোনা ভাইরাস আক্রমণ শুরু হওয়ার পর বিভিন্ন ক্ষেত্রে পরিস্থিতির অবনতি হয়েছে। অসংগঠিত ক্ষেত্রের শ্রমিকরা বিপর্যয়ের মুখে পড়েছে। বিজেপি সরকার পরিস্থিতি মোকাবিলা করতে পারেনি। এইসব বিষয়কেই তুলে ধরতে চাইছে কংগ্রেস। বেরোজগারি হচ্ছে এই ক্যাম্পেইনের কেন্দ্রীয় থিম। কেন্দ্রের অপরিকল্পিত লকডাউন এবং উদ্দেশ্যহীন কাজকারবার দেশের মানুষকে কর্মহীন করেছে বলে এখানে দাবি করা হয়েছে। প্রাক্তন সভাপতি রাহুল গান্ধি– সাধারণ সম্পাদক প্রিয়াঙ্কা গান্ধি সহ বেশ কয়েকজন কংগ্রেস নেতা টু্যইট করেছেন ‘হ্যাশট্যাগ স্পিক আপ ফর জব’ স্লোগান দিয়ে। 
রাহুল এ দিন টু্যইট করেন মোদি সরকারের নীতি কয়েক কোটি মানুষকে কর্মহীন করেছে এবং জিডিপির ঐতিহাসিক পতন ঘটেছে। ভারতের ভবিষ্যৎ প্রজন্মকে ধ্বংস করে দিয়েছে এই নীতি চলুন এবার তাদের কথা শোনা যাক। কংগ্রেস দল তাদের অফিসিয়াল টু্ইটার অ্যাকাউন্টে লিখেছে যে  প্রত্যেকদিন লক্ষ লক্ষ ভারতীয় কাজ হারাচ্ছে। এটা লকডাউন হোক কিংবা আনলক ইন্ডিয়া হোক। বিজেপি চুপচাপ দেখছে। কিন্তু দেশের মানুষ আর চুপ করে বসে থাকবে না। দেশের জনতা কাজের জন্য গর্জে উঠবে। এই টু্যইটে প্রধানমন্ত্রী মোদির ছবি সহ একটি পোস্টার শেয়ার হয়েছে ‘চাকরি কোথায় মোদিজি’ এই বার্তাটি লিখে। কংগ্রেস নেত্রী প্রিয়াঙ্কা গান্ধি টু্যইটারে লেখেন,  বেসরকারীকরণ বাড়ার ফলে বহুজন চাকরি হারাচ্ছে। বিজেপি সরকারের ভ্রান্ত অর্থনৈতিক নীতিও এর জন্য দায়ী। যেসব পদ খালি রয়েছে সেগুলো পূরণ করছে না সরকার। দেশের ভবিষ্যতের জন্য আমাদেরকে এখনই মুখ খুলতে হবে।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only