বুধবার, ১৪ অক্টোবর, ২০২০

বিজেপি বাংলা তথা দেশের শত্রু, এরা ধ্বংস করতে এসেছে : গোপাল শেঠ



এম এ হাকিম, বনগাঁ : উত্তর ২৪ পরগণা জেলা তৃণমূলের কো-অর্ডিনেটর ও প্রাক্তন বিধায়ক গোপাল শেঠ বলেছেন, বিজেপি বাংলা তথা দেশের শত্রু। এরা দেশের উন্নয়ন করতে আসেনি। এরা ধ্বংস করতে এসেছে। বুধবার তিনি স্বরূপনগরের মালঙ্গপাড়া কেবিসি ইনিস্টিটিউশনে এক সভায় বক্তব্য রাখার সময়ে ওই মন্তব্য করেন।


গোপাল শেঠ বিজেপিকে কটাক্ষ করে বলেন, ‘ওঁরা গু-গোবর-চোনা এইসব নিয়ে ঘুরে বেড়ায়। গায়ে মাখে। বাড়ি গিয়ে ভোট চাইতে গেলে বলবেন, তোমরা আগে গায়ে আগে গোবর-চোনা দিয়ে এসো, তারপরে আমাদের কাছে প্রচার করতে এসো। প্রথমেই তো ওঁরা মিথ্যে কথা বলছে, এসব করলে নাকি করোনা সারে! কিন্তু করোনা ডেকে নিয়ে এসেছে তো নরেন্দ্র মোদি। এসব কথা গ্রামে গিয়ে মানুষের মধ্যে বলতে হবে। মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের ৬৪ টি প্রকল্পের কথা মানুষকে জানাতে হবে।’



গোপাল বাবু উত্তর প্রদেশের হাথরাসের দলিত তরুণীকে গণধর্ষণ ও হত্যার ঘটনা উল্লেখ করে রাজ্যের যোগী আদিত্যনাথ সরকার ও বিজেপি’র তীব্র সমালোচনা করেন। প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে তিনি ‘মাচান বাবা’ বলে কটাক্ষ করে দেশের রেল, কয়লাখনি সহ বিভিন্ন সম্পদ ও প্রতিষ্ঠান বিক্রি করছেন বলে মন্তব্য করেন।    


জেলা তৃণমূলের চেয়ারম্যান ও বিধায়ক নির্মল ঘোষ বলেন, ‘আমরা করোনাকে জয় করব। করোনাকে জয় না করতে পারলে বিজেপি’র মত শত্রু, দেশের শত্রু, দেশ বিভাজনের শত্রুকে সরাতে পারব না।’ 


‘পুবের কলম’কে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে তৃণমূল নেতা গোপাল শেঠ বলেন, ‘করোনা নির্মূলের বিষয়ে বিজেপি মিথ্যে ও অবৈজ্ঞানিক কথা বলে মানুষের মধ্যে বিভ্রান্তি ছড়াচ্ছে। মানুষকে ঝুঁকির মধ্যে ফেলছে। এর বিরুদ্ধে সবাইকে সচেতন হতে হবে। উত্তর প্রদেশসহ বিজেপিশাসিত রাজ্যগুলোতে দলিত-আদিবাসীদের উপরে অত্যাচার বাড়ছে। আসন্ন নির্বাচনে সাধারণ মানুষ ওঁদেরকে উচিত শিক্ষা দেবে।’ 


স্বরূপনগরের ওই সভায় বিধায়ক বীণা মণ্ডল, পঞ্চায়েত সমিতির সভাপতি সঙ্গীতা কর ও অন্যরা উপস্থিত ছিলেন।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only