মঙ্গলবার, ৬ অক্টোবর, ২০২০

১২ অক্টোবর ফের সামরিক পর্যায়ে বৈঠক ভারত-চিনের



নয়াদিল্লি, ৬ অক্টোবরঃ ফের ভারত ও চিনের মধ্যে উচ্চ সামরিক পর্যায়ের বৈঠক হতে চলেছে। ১২ অক্টোবর এই বৈঠক হতে চলেছে। যেহেতু দু’পক্ষই লাদাখের প্রকৃত নিয়ন্ত্রণ রেখায়  খননকাজের প্রস্তুতি নিয়ে রেখেছে এমনকী ইতিমধ্যে তা কিছুটা শুরুও করা হয়ে গিয়েছে। এই পরিস্থিতিতে স্বাভাবিকভাবেই এই বৈঠক গুরুত্বপূর্ণ হতে চলেছে বলে মনে করছে রাজনৈতিক মহল।


উল্লেখ্য, প্রতিরক্ষা ও নিরাপত্তা সংক্রান্ত বিভাগ সূত্রে জানা গিয়েছে, ইতিমধ্যেই উভয় পক্ষের তরফে শীতের মরশুমে সীমান্তে কোনও ধরনের বাড়তি সেনা মোতায়েনের বিষয়টি উড়িয়ে দেওয়া হয়েছে। দু’পক্ষই চায়, যে পদক্ষেপই নেওয়া হোক না কেন তা যেন পারস্পরিক আলোচনা ও সহমতের ভিত্তিতে সবদিক খতিয়ে দেখে নেওয়া হোক। 


উল্লেখ্য, সেই ১৯৫৯ সালে চিন যে প্রকৃত নিয়ন্ত্রণ রেখার দাবি করেছিল, পুরনো সেই দাবির ভিত্তিতে সম্প্রতি চিন নতুন করে প্রকৃত নিয়ন্ত্রণরেখার যে সংজ্ঞা দিতে চাইছে, তাতে আপত্তি জানিয়েছে ভারত। সেই হিসেবে বলা চলে, চিনের তরফে সম্প্রতি এই দাবি তোলার পর এটাই দু’দেশের মধ্যে প্রথম বৈঠক। বৈঠকে চিন যদি ১৯৫৯ সালের দাবিকে সামনে আনার চেষ্টা করে, ভারত তা মানবে না বলে জানিয়ে দেওয়া হয়েছে। দু’দেশের সামরিক ক্ষেত্রে ১৪ কর্পস কম্যান্ডার লেফটেন্যান্ট জেনারেল পর্যায়ের এই বৈঠক হবে। 


১৯৫৯ সালের সেই বহু পুরনো দাবিকে এখন নতুন করে সামনে এনে তার ভিত্তিতে চিন যেভাবে প্রকৃত নিয়ন্ত্রণ রেখার ফর্মুলা তৈরি করতে চাইছে তাতে মোটেই খুশি নয় ভারত। ভারতের প্রতিরক্ষা মন্ত্রকের বিশেষজ্ঞরা মনে করছেন, পশ্চিম ফ্রন্টে আরও যে ৬টি জায়গা নিয়ে ইন্দো-চিন বিরোধ রয়েছে, ৫৯ সালের সেই পুরনো দাবিকে সামনে রেখে ড্রাগন বাহিনী এই ৬ জায়গায় নতুন করে আগ্রাসন দেখানোর চেষ্টা করতেপারে।


ইতিমধ্যে ভারতের পক্ষ থেকে এই ফ্রন্টগুলিতে সেনাবাহিনী সতর্ক করা হয়েছে। ১৯৫৯ সালের ৭ নভেম্বর তৎকালীন প্রধানমন্ত্রী জওহরলাল নেহরুকে ‘গ্রিন লাইন’ চিহ্নিত একটি সামরিক (মিলিটারি) মানচিত্র পাঠিয়েছিলেন চিনের প্রধান ঝাউ এন লাই। লাইয়ের বক্তব্য ছিল, তাঁরে দাবিমতো এই ‘গ্রিন লাইন’কে প্রকৃত নিয়ন্ত্রণরেখার মান্যতা দিতে হবে। যদিও ভারত সেই দাবি পত্রপাঠ খারিজ করে দিয়েছিল। সম্প্রতি, লাদাখ-কাণ্ডের পর চিন নতুন করে সেই দাবি তুলতে শুরু করেছে। 

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only