বৃহস্পতিবার, ১৫ অক্টোবর, ২০২০

আজারবাইজানের পাশে মেসুট ওজিল, যুদ্ধ বন্ধের আর্জি জার্মান ফুটবল তারকার



পুবের কলম প্রতিবেদক‌: গত ২৭ সেপ্টেম্বরের সকালে হঠাৎ যুদ্ধ আরম্ভ হয় আজারবাইজান ও আর্মেনিয়ার মধ্যে। তাদের এই যুদ্ধে  পশ্চিম এশিয়ার একটা বড় অংশে উদ্বেগ বেড়েছে। নাগারনো-কারাবাখের মালিকানা নিয়ে সোভিয়েত ইউনিয়নের দু’টি দেশের মধ্যে বিরোধ নতুন কোনও ঘটনা নয়। দক্ষিণ ককেশাসের এই অঞ্চল কার? এই প্রশ্ন দু’টি দেশের মধ্যে কূটনৈতিক অচলাবস্থা ছাড়াও মাঝেমধ্যে সেখানে উত্তেজনা তৈরির পাশাপাশি সামরিক সংঘর্ষও হয়। কিন্তু গত কয়েকদিনে যেভাবে দুই দেশের মধ্যে যুদ্ধ বেড়ে চলছে, তা সাম্প্রতিককালে নজিরবিহীন। এরইমধ্যে সেখানে প্রাণ হারিয়েছেন প্রায় ৩ হাজার সেনা। আর এবার তা নিয়ে মুখ খুললেন আর্সেনালের ফুটবল তারকা মেসুট ওজিল। তাঁর মতে, নাগারনো-কারাবাখ অঞ্চলটি আজারবাইজানের। যেটি অন্যায়ভাবে দখল করে রেখেছে আর্মেনিয়া।


সোভিয়েত ইউনিয়ন ভেঙে যাওয়ার পর আর্মেনিয়া সেনাবাহিনী নাগারনো-কারাবাখ দখল করে নিয়েছিল। আন্তর্জাতিকভাবে এই এলাকাটি আজারবাইজানের বলে স্বীকৃত, কিন্তু অঞ্চলটি অবৈধভাবে দখল করে রয়েছে আর্মেনিয়া। তুরস্ক ও আজারবাইজানের মধ্যে ভ্রাতৃত্ব ও দৃঢ় সম্পর্কের কথা উল্লেখ করে তুর্কি বংশোদ্ভ‍ুত ৩১ বছর বয়সি তারকা ওজিল বলেন, ‘একটি জাতি, দু’টি রাষ্ট্র।’ একটু থেমে, ‘আমি মনে করি, সারা বিশ্বের মানুষের সত্য ঘটনা জানা উচিত। আসলে নাগারনো-কারাবাখ অঞ্চলটি আন্তর্জাতিকভাবে আজারবাইজানের জন্য স্বীকৃত। সেটা অবৈধভাবে দখল করে রাখা হয়েছে।’


আজরবাইজানের পাশে দাঁড়িয়ে ওজিল জানান, ‘২০০৮ সালের মার্চে রাষ্ট্রসংঘের সাধারণ সভায় আজারবাইজানের সীমানা নির্ধারণের ক্ষেত্রে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করার চেষ্টা করা হয়েছিল। কড়া ভাষায় বলে দেওয়া হয়েছিল, আর্মেনিয়া যেন তাদের সমস্ত সেনা সেখান থেকে প্রত্যাহার করে নেয়।’ ওজিলের মতে, রাষ্ট্রসংঘের সিদ্ধান্তটি যথেষ্ট গুরুত্বপূর্ণ এবং সেটি আন্তর্জাতিক স্বীকৃত। তিনি আরও বলেন, ‘নাগারনো-কারাবাখের মানুষের কাছে এখন পরিস্থিতি সত্যিই বেশ ভয়ের। এই ঘটনা আন্তর্জাতিক শান্তি ও নিরাপত্তাকেও বিঘ্নিত করছে।’ শুধু তাই নয়, যুদ্ধ বন্ধের আর্জি জানিয়ে ওজিল আরও বলেন, ‘আসুন আমরা সবাই শান্তি কামনা করি। বিভীষিকা বন্ধ করে নির্মল ভবিষ্যতের জন্য একসঙ্গে কাজ করার অঙ্গীকার করি। একটা মৃত্য‍ুর যে কোনও পক্ষের কাছে বিরাট ক্ষতি।’

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only